রাজ্যে এলো আরও কোভিশিল্ড! কেন্দ্রীয় সরকারের ভ্যাকসিন পাঠানোয় খুশি স্বাস্থ্য দপ্তর

রাজ্যে এলো আরও কোভিশিল্ড! কেন্দ্রীয় সরকারের ভ্যাকসিন পাঠানোয় খুশি স্বাস্থ্য দপ্তর
রাজ্যে এলো আরও কোভিশিল্ড! কেন্দ্রীয় সরকারের ভ্যাকসিন পাঠানোয় খুশি স্বাস্থ্য দপ্তর

ফের রাজ্যে এলো কোভিশিল্ড।বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার বিমানে কলকাতা বিমানবন্দরে ৩৪লক্ষ কোভিশিল্ড ভ্যাকসিন এসে পৌঁছয়। আজ রাতের বিমানে আরো ৫ লক্ষ ৫০ হাজার কোভ্যাকসিন আসবে। সব মিলিয়ে মোট ৩৯ লক্ষ ভ্যাকসিন পাবে রাজ্য।

এদিন কেন্দ্র সরকারের তরফ থেকে পুনের সিরাম ইনস্টিটিউট থেকে পাঠানো হয় এই ভ্যাকসিন। কলকাতা বিমানবন্দর থেকে বাগবাজার সেন্ট্রাল স্টোরে নিয়ে যাওয়া হয় এই কোভিশিল্ড ভ্যাকসিন। আগামীকাল বিভিন্ন স্বাস্থ্যকেন্দ্র ও সরকারি হাসপাতালে ভ্যাকসিনগুলিকে পাঠিয়ে দেওয়া হবে।

এদিকে স্বাস্থ্য দপ্তর সূত্রে খবর, আজকের ভ্যাকসিন বাদ দিয়েও রাজ্যের কাছে ৪২ লক্ষ ভ্যাকসিন ছিল। আজকের ভ্যাকসিন পাওয়ার পর প্রায় ৮০লক্ষ ভ্যাকসিন থাকবে রাজ্যের কাছে। তবে কেন্দ্র সরকারের তরফ থেকে যেভাবে ভ্যাকসিন পাঠানো হচ্ছে তাতে একপ্রকার খুশি স্বাস্থ্য দপ্তরে আধিকারিকরা তা বলাই বাহুল্য।

অন্যদিকে, পুজোর পর সংক্রমণ যেভাবে বাড়ছে তাতে টীকাকরণকেই একমাত্র প্রতিরোধক হিসেবে স্বীকার করে নিচ্ছেন চিকিৎসকরা। চিকিৎসক মহলের দাবি, সংক্রমণ বাড়লেও এর তীব্রতা দ্বিতীয় ঢেউয়ের মতো ভয়াবহ হবে না। অন্যতম কারণ বেশিরভাগ মানুষের টিকাকরণ। যেহেতু অনেকের টিকাকরণ হয়ে গিয়েছে এবং একই সঙ্গে একটি হার্ড ইমিউনিটি তৈরি হয়েছে মানুষের মধ্যে তাই সংক্রমণ বাড়লেও দ্বিতীয় ঢেউয়ের মতো তার ভয়াবহতা থাকবে না বলেই মনে করছেন চিকিৎসকরা।