ক্রমশ সুস্থতার পথে বাংলা! গত ২৪ ঘণ্টায় হাজারের নিচে দৈনিক করোনা আক্রান্তের সংখ্যা, কমেছে মৃত্যুও

ক্রমশ সুস্থতার পথে বাংলা! গত ২৪ ঘণ্টায় হাজারের নিচে দৈনিক করোনা আক্রান্তের সংখ্যা, কমেছে মৃত্যুও
ক্রমশ সুস্থতার পথে বাংলা! গত ২৪ ঘণ্টায় হাজারের নিচে দৈনিক করোনা আক্রান্তের সংখ্যা, কমেছে মৃত্যুও / প্রতীকী ছবি

বংনিউজ ২৪x৭ ডিজিটাল ডেস্কঃ এই মুহূর্তে আগের থেকে অনেকটাই নিয়ন্ত্রণে করোনার সংক্রমণ। করোনার বিরুদ্ধে লড়াইয়ে এগোচ্ছে বাংলা। রাজ্যে জারি রয়েছে কড়া বিধিনিষেধ। এই বিধিনিষেধ জারির সুফলও মিলছে। স্বাস্থ্য দফতরের পরিসংখ্যান থেকেই তা স্পষ্ট। ভোটের আবহে এপ্রিল-মে মাসে ঝড়ের গতিতে রাজ্যে বাড়ছিল করোনার সংক্রমণ। বর্তমানে তা অনেকটাই নিম্নমুখী।

জুলাইয়ের শুরু থেকেই রাজ্যে করোনার গ্রাফ নিম্নমুখী হতে শুরু করে। সেই সঙ্গে বাড়ছে সুস্থতার হারও। যা অবশ্যই আশার আলো দেখাচ্ছে করোনা যুদ্ধে। ক্রমশ কমছে সক্রিয় করোনা রোগীর সংখ্যা। গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে আরও নিম্নমুখী করোনার দৈনিক সংক্রমণ। সপ্তাহের প্রথম দিনেই এক ধাক্কায় অনেকটাই কমল রাজ্যে দৈনিক করোনার সংক্রমণ। দীর্ঘদিন পর, এক হাজারের নিচে নামল দৈনিক করোনা আক্রান্তের সংখ্যা। সেই সঙ্গে কমেছে মৃত্যুর সংখ্যাও। সব মিলিয়ে, স্বাভাবিক ছন্দে ফিরছে বাংলা।

সোমবার সন্ধের সময় রাজ্য স্বাস্থ্য দফতরের দেওয়া রিপোর্ট অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে করোনা আক্রান্ত হয়েছেন ৮৮৫ জন। তাঁদের মধ্যে স্বাস্থ্য দফতরের পরিসংখ্যান অনুযায়ী, দৈনিক সংক্রমণের নিরিখে উত্তর ২৪ পরগণা রয়েছে প্রথম স্থানে। গত ২৪ ঘণ্টায় এই জেলায় আক্রান্ত হয়েছেন ১০৯ জন। এই জেলায় করোনার দৈনিক সংক্রমণ ফের বাড়ছে। সংক্রমণের নিরিখে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে দার্জিলিং। এই জেলার করোনা সংক্রমণ ক্রমশ উদ্বেগ বাড়াচ্ছে স্বাস্থ্য দফতরের। এই জেলায় গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে করোনা আক্রান্ত হয়েছেন ৮১ জন। আর পঞ্চম স্থানে রয়েছে কলকাতা। কলকাতায় একদিনে করোনা আক্রান্ত হয়েছেন ৬৪ জন। তবে, এদিন উত্তর ২৪ পরগণা ছাড়া আর কোনও জেলায় ১০০-র গণ্ডি স্পর্শ করেনি করোনা সংক্রমণ। এদিন বাংলায় মোট করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ১৫ লক্ষ ৬ হাজার ২৭৯ জন।

গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে করোনায় প্রাণ হারিয়েছেন ১৮ জন। গতকালের থেকে মৃত্যুর সংখ্যাও কম। মৃত্যুর নিরিখে শীর্ষে রয়েছে উত্তর ২৪ পরগণা জেলা। এই জেলায় গত ২৪ ঘণ্টায় প্রাণ হারিয়েছেন ৩ জন। আর কলকাতায় মৃত্যু হয়েছে ২ জনের। এখনও পর্যন্ত রাজ্যে ১৭ হাজার ৮১৭ জনের মৃত্যু হয়েছে মারণ করোনায়। গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে করোনা থেকে মুক্ত হয়েছেন ১৬৯৭ জন। যা দৈনিক আক্রান্তের সংখ্যার থেকে দ্বিগুণ। এ নিয়ে মোট ১৪ লক্ষ ৭০ হাজার ৫১২ জন রাজ্যে করোনা থেকে মুক্ত হয়েছেন। ফলে রাজ্যে সুস্থতার হার বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৯৭.৬৩ শতাংশ। বর্তমানে রাজ্যে চিকিৎসাধীন করোনা রোগীর সংখ্যা ১৭ হাজার ৯৫০ জন। রবিবারের তুলনায় যা ৮৩০ জন কম।