শনিবার, ২৯ জানুয়ারি, ২০২২

হাঁসখালি-কৃষ্ণনগরের পর নবদ্বীপ-কৃষ্ণনগর রাজ্য সড়কেও দুর্ঘটনা! মৃত্যু সাইকেল আরোহীর

১০:৫০ এএম, নভেম্বর ২৯, ২০২১

হাঁসখালি-কৃষ্ণনগরের পর নবদ্বীপ-কৃষ্ণনগর রাজ্য সড়কেও দুর্ঘটনা! মৃত্যু সাইকেল আরোহীর

বংনিউজ ২৪x৭ ডিজিটাল ডেস্কঃ রবিবার নদীয়ায় মর্মান্তিক দুর্ঘটনায় ১৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। শনিবার গভীর রাতে নদিয়া জেলার হাঁসখালি থানার ফুলবাড়িতে ম্যাটাডোর ও পাথরবোঝাই ট্রাকের সংঘর্ষে ১৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। মৃতদেহ দাহ করতে ২৫ জন নবদ্বীপে যাচ্ছিলেন। পথেই হাঁসখালি থানার ফুলবাড়ি এলাকায় পাথর বোঝাই লরির সঙ্গে সংঘর্ষ হয় গাড়িটির। এর জেরেই ১৮ জনের মৃত্যু হয়।

এই দুর্ঘটনায় মৃতদের উদ্দেশে শোকপ্রকাশ করেছেন, মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী, কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ, রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড় প্রমুখ। মৃতদের পরিবারকে আর্থিক সাহায্যের দেওয়ার ঘোষণা হয়েছে। এদিকে, এই ভয়াবহ দুর্ঘটনার রেশ কাটতে না কাটতেই আবারও দুর্ঘটনার বলি এক।

সোমবার হাঁসখালি-কৃষ্ণনগরের পর নবদ্বীপ-কৃষ্ণনগর রাজ্য সড়কেও ফের দুর্ঘটনা। মৃত্যু হল এক সাইকেল আরোহীর। এদিকে, পরপর দু’দিন পথ দুর্ঘটনাকে কেন্দ্র করে দেপাড়ার কাছে ব্যাপক উত্তেজনার সৃষ্টি হল। পথ নিরাপত্তার অভিযোগ তুলে স্থানীয় বাসিন্দারা এদিন পথ অব রোধ করেন।

জানা গিয়েছে সোমবার সকালে কাজে যাওয়ার উদ্দেশে সাইকেলে চড়ে বাড়ি থেকে বেরোন হাজিবুল শেখ নামে এক যুবক। নবদ্বীপ-কৃষ্ণনগর রাজ্য সড়কের কোতোয়ালি থানার দেপাড়ার কাছে, দ্রুত গতিতে আসা একটি লরি তাঁর সাইকেলে ধাক্কা মারে। সাইকেল থেকে ছিটকে পড়ে যান হাজিবুল শেখ। এর জেরে ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় তাঁর। পরপর দু’দিন দুর্ঘটনার জেরে এতগুলি প্রাণের মৃত্যুতে ক্ষোভে ফেটে পড়েন স্থানিয়রা। পথ নিরাপত্তার অভাবের অভিযোগ তুলে তাঁরা রাস্তা অবরোধ করেন। এই অবরোধের জেরে ব্যাপক যানজট তৈরি হয়। পাশাপাশি ব্যহত হয় যান চলাচলও।