“বাংলার মেয়ে সোনার মেয়ে, তাই দুর্গার মুখে সোনার মাস্ক”, ঢাকের কাঠি হাতে খুঁটিপুজোয় আদিতি মুন্সি

বংনিউজ২৪x৭ ডেস্কঃ মা আসছেন। আকাশে বাতাসে তাই মায়ের আগমনীর গন্ধ। হাতে আর ২ মাস মত। তারপরই বাঙালির সবচেয়ে বড় উৎসব দুর্গাপূজা। কিন্তু একদিকে শ্রাবণের বর্ষা অপরদিকে চোখ রাঙাচ্ছে করোনার তৃতীয় ঢেউ। ইন্ডিয়ান মেডিক্যাল অ্যাসোসিয়েশন এবং IIT কানপুরের গবেষণাপত্রেও আশঙ্কা করা হয়েছে অক্টোবর নভেম্বর মাসেই দেশে আছড়ে পড়তে পারে করোনার তৃতীয় ঢেউ। তবে তাঁর জন্যে মায়ের আগমনে কোনও খামতি রাখতে চান না পশ্চিমবঙ্গবাসি। শুধু দরকার একটু সচেতনতা। সকলেই যদি সচেতনতার সঙ্গে মায়ের আগমনে সামিল হন তাহলে আর কোনও অসুবিধার মুখে পড়তে হবে না জনগণদের।

একদিকে শ্রাবণের বর্ষার জল অপরদিকে করোনার চোখ রাঙানি। তারমধ্যেই ঢাকে পড়ল কাঠি। কলকাতা সহ বাংলার বিভিন্ন স্থানে সম্পন্ন হল খুঁটিপুজোর কর্মসূচি। শুরু পুজোর প্রস্তুতি। সেই ছবিই ধরা পড়ল অশ্বিনীনগর বন্ধুমহল ক্লাবে। দেবীকে সোনার মাস্ক পরিয়ে আরাধনার সূচনা। উপস্থিত ছিলেন বিধায়ক অদিতি মুন্সি। তিনিই মায়ের মুখে পরিয়ে দিলেন সোনার মাস্ক। তাঁর মতে এই পুজোর সঙ্গে জড়িয়ে থাকে বহু মানুষের জীবিকা। তাই পুজো হোক তবে সচেতন থেকে। সকলের কাছেই অনুরোধ জানান তিনি মাস্ক পরে সচেতনতার সঙ্গে পুজো উপভোগ করুন।

তাছাড়াও সোনার মাস্ক প্রসঙ্গে জানান, বাংলার প্রতিটি মেয়ে সোনার মেয়ে তাই মা এর আগমনেও থাকবে সোনার মাস্ক। তবে শুধু মাস্ক নয় মায়ের ১০ হাতে রয়েছে থার্মাল গান, পালস অক্সিমিটার, স্যানিটাইজার। এই কর্মসূচিতে অদিতি মুন্সিকে দেখা ঢাকের কাঠি হাতেও। পুজো নিয়ে গায়িকার আনন্দও যে তুঙ্গে সে নিয়ে আর কোনও প্রশ্নই নেই ।