৭০-এ পূর্ব পাকিস্তান থেকে আসা ৬৩ হিন্দু বাঙালি পরিবারের পুনর্বাসনের সিদ্ধান্ত যোগী সরকারের

৭০-এ পূর্ব পাকিস্তান থেকে আসা ৬৩ হিন্দু বাঙালি পরিবারের পুনর্বাসনের সিদ্ধান্ত যোগী সরকারের
৭০-এ পূর্ব পাকিস্তান থেকে আসা ৬৩ হিন্দু বাঙালি পরিবারের পুনর্বাসনের সিদ্ধান্ত যোগী সরকারের

বংনিউজ ২৪x৭ ডিজিটাল ডেস্কঃ সামনেই উত্তরপ্রদেশে বিধানসভা নির্বাচন। আর অপেক্ষামাত্র কয়েক মাসের। ইতিমধ্যেই সে রাজ্যে বিজেপি কোমর বেঁধে ময়দানে নেমে পড়েছে। নির্বাচনী প্রস্তুতি তুঙ্গে। উত্তরপ্রদেশে মুখ্যমন্ত্রী পদে ফের যোগী আদিত্যনাথই প্রথম পছন্দ মোদী-শাহের।

এদিকে এই পরিস্থিতিতে, নির্বাচনী আবহে যোগী আদিত্যনাথের সরকার বড় ঘোষণা করল, ২২-এর বিধানসভা নির্বাচনকে সামনে রেখে। ১৯৭০ সালে তৎকালীন পূর্ব পাকিস্তান থেকে সব হারিয়ে এপারে চলে এসেছিলেন বহু হিন্দু বাঙালি পরিবার। উত্তরপ্রদেশে এমন বহু পরিবার রয়েছে। সেই সব পরিবারের জন্য পুনর্বাসনের ব্যবস্থা করার সিদ্ধান্ত নিলেন মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ।

উত্তরপ্রদেশের মন্ত্রিসভার বৈঠকে ঠিক হয়েছে, কানপুরের দেহাত জেলায় ১২১.৪১ একর জমিতে আশ্রয়ের বন্দোবস্ত করা হবে ৬৩টি হিন্দু বাঙালি পরিবারের। জানা গিয়েছে, প্রতিটি পরিবারকে চাষের জন্য ২ একর জমি দেওয়া হবে। আর থাকার জন্য ২০০ ২০০ বর্গফুট জমি ৩০ বছরের জন্য ১ টাকায় লিজ পাবে পরিবারগুলি। তা দু’বার ৩০ বছর করে বর্ধিত করা যাবে। পাশাপাশি মুখ্যমন্ত্রী আবাস যোজনার আওতায় পরিবারগুলিকে ঘর নির্মাণের জন্য ১.২ লক্ষ টাকা করে দেবে সরকার। একশো দিনের কাজে ভূমি সংস্কার ও সেচের বন্দোবস্ত করা হবে।

উত্তরপ্রদেশের যোগী আদিত্যনাথের সরকার জানিয়েছে, ১৯৬০ সালের পুনর্বাসন আইনের আওতায় আশ্রয় ও জীবিকার ব্যবস্থা করে দেওয়া হচ্ছে। মোট ৬৫ পরিবারকে মেরঠের কারখানায় কাজ দেওয়া হয়েছিল। ১৯৮৪ সালে তা বন্ধ হয়ে যায়। এখন রয়েছে ৬৩টি পরিবার। ওই পরিবারগুলির পাশে দাঁড়ানোর সিদ্ধান্ত নিলেন যোগী আদিত্যনাথ।