মুখ্যমন্ত্রীর ই-স্কুটারে চেপে অভিনব প্রতিবাদকে কটাক্ষ বিরোধীদের

মুখ্যমন্ত্রীর ই-স্কুটারে চেপে অভিনব প্রতিবাদকে কটাক্ষ বিরোধীদের
মুখ্যমন্ত্রীর ই-স্কুটারে চেপে অভিনব প্রতিবাদকে কটাক্ষ বিরোধীদের

পেট্রোপন্যের মূল্যবৃদ্ধির প্রতিবাদে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের স্কুটার চড়ার প্রতিক্রিয়াকে উপহাস করলেন বিজেপি-র রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ এবং প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি অধীর চৌধুরী।

দিলীপবাবু বলেন, “ওনাকে তো দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে সরকার চালানোর জন্য। তাও যদি চালাতে পারতেন! সরকার চালাতেও পারেননা। স্কুটার চালাতেও পারেননা। গত ১০ বছরে এই প্রথম বাড়ল নাকি দাম? ভারত সরকারের আয় বেড়েছে কয়েকগুন, খরচা বেড়েছে, বাজেটও বেড়েছে। সারা দেশের কষ্ট হচ্ছে না, যত কষ্ট এ রাজ্যে! পেট্রোপন্যের দাম বাড়ায় একবার ইন্দিরা গান্ধী গিয়েছিলেন ঘোড়ার গাড়ি চড়ে। অটলবিহারি বাজপেয়ী গিয়েছিলেন সাইকেল চড়ে। এসব ইতিহাস আমরা জানি”।

কংগ্রেস নেতা অধীর রঞ্জন চৌধুরী বলেন, “সারা ভারতে ইলেকট্রিক স্কুটার ব্যবহার করা উচিৎ। তাতে জ্বালানির উপর নির্ভরতা কমবে। মুখ্যমন্ত্রী এখন কেন করছেন, অনেক আগে করা উচিত ছিল। ভোটের আগে নাটক করছেন। করোনা চলাকালীন মুখ্যমন্ত্রী পেট্রোপণ্যের উপর একের পর এক ভ্যাট বসিয়েছেন। তাঁকে আগে বলতে হবে ভ্যাট চাপিয়ে তিনি কত রোজগার করেছেন? মানুষকে কত দিয়েছেন?”

প্রসঙ্গত এদিন সকালে ইলেকট্রিক স্কুটারে চড়ে নবান্নে পৌঁছেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী। নবান্ন আসার পথে স্কুটার চালিয়েছিলেন ফিরহাদ হাকিম। ফেরার পথে কিছুটা পথ মুখ্যমন্ত্রী নিজেই স্কুটার চালানোর চেষ্টা করেন।

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন.