বৃহস্পতিবার, ১৯ মে, ২০২২

খুলে গেল তারাপীঠের সব হোটেল! ফের শুরু ভক্ত সমাগম

১০:৫৬ পিএম, জানুয়ারি ১৬, ২০২২

খুলে গেল তারাপীঠের সব হোটেল! ফের শুরু ভক্ত সমাগম

নতুন বছরের শুরুতেই ফের রাজ্যে ঊর্ধ্বমুখী করোনা সংক্রমণ। কিন্তু এর মধ্যেই যাবতীয় বিধি নিষেধ সত্ত্বেও খুলে গেল তারাপীঠের সমস্ত হোটেল। কিন্তু হঠাৎ কেন এই সিদ্ধান্ত? স্থানীয় প্রশাসনের যুক্তি শুনলে কার্যত অবাক হতে হয়।

১৫ জানুয়ারির পর বিধি নিষেধে খানিকটা শিথিল করা হয়েছে নবান্নের তরফে। রাজ্যের এই নয়া নির্দেশিকায় জানানো হয়েছে, যে কোন অনুষ্ঠান বাড়িতে 200 জন নিয়ে বিয়ে বা সামাজিক অনুষ্ঠান করা যেতে পারে। আর রাজ্য সরকারের এই নিয়মের শিথিলকরণকেই হাতিয়ার করেছেন তারাপীঠের হোটেল ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতির সুনীল গিরি।

সংক্রমণ রুখতে ৩ জানুয়ারি থেকে কড়া বিধিনিষেধ আরোপ করে রাজ্য সরকার। পর্যটন কেন্দ্রগুলিতে জমায়েতের উপর নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়। এরপরই ৪ঠা জানুয়ারি তারাপীঠ-রামপুরহাট উন্নয়ন পর্ষদের সভাকক্ষে প্রশাসনিক বৈঠক হয়। সরকারের তরফে পরবর্তী আদেশ না মেলা পর্যন্ত তারাপীঠের সব হোটেল বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় বৈঠকে। যদিও প্রশাসনের নির্দেশ না মেনেই খোলা রাখা হয়েছিল হোটেলগুলি।

হোটেল খোলার বিষয়ে মহকুমাশাসকের সম্মতি রয়েছে জানিয়ে সুনীলবাবু বলেন, "আমরা মহকুমাশাসকের সঙ্গে কথা বলেছি। উনি হোটেলের ২৫ শতাংশ ঘর ভাড়া দেওয়ার আদেশ দিয়েছেন। সেই মতো আমরা এদিন থেকে হোটেলের ঘর ভাড়া দিতে শুরু করেছি।"

তবে জেলাশাসক বিধান রায় অবশ্য জানিয়েছেন, ৩১জানুয়ারি পর্যন্ত রাজ্য সরকারের সব বিধি নিষেধ জারি থাকবে। বিবাহ কিংবা সামাজিক অনুষ্ঠান থাকলে সে ক্ষেত্রে ২০০ জন নিয়ে ভাড়া দেওয়া যেতে পারে।কিন্তু পর্যটনকেন্দ্রে কোনও হোটেল ভাড়া দেওয়ার যাবে না পর্যটকদের।