রাজ্যপালের ভুলে যাওয়ার রোগ হয়েছে! তীব্র কটাক্ষ অমিত মিত্রের

রাজ্যপালের ভুলে যাওয়ার রোগ হয়েছে! তীব্র কটাক্ষ অমিত মিত্রের
রাজ্যপালের ভুলে যাওয়ার রোগ হয়েছে! তীব্র কটাক্ষ অমিত মিত্রের

রাজ্যপালের ভুলে যাওয়ার রোগ হয়েছে। কার্যত এইভাবেই বুধবার সন্ধ্যায় রাজ্যপাল জগদীপ ধনকরকে বিঁধলেন রাজ্যের অর্থদফতরের উপদেষ্টা অমিত মিত্র। বিশ্ব বাংলা বাণিজ্য সম্মেলন নিয়ে রাজ্যপালের করা টুইটেরই কড়া প্রতিক্রিয়া দেন এদিন মুখ্যমন্ত্রীর অর্থ দফতরের উপদেষ্টা।

রাজ্যপাল জগদীপ ধনকর বিশ্ব বাংলা বাণিজ্য সম্মেলন নিয়ে এক বছর আগের লেখা চিঠি শেয়ার করে বাণিজ্য সম্মেলনের সাফল্য নিয়েই প্রশ্ন তুলেছিলেন। অথচ, বিজয়া সম্মিলনীর সময় রাজভবনে তাঁকে বলতে শোনা গিয়েছিল “আগামী বছরের বাণিজ্য সম্মেলনকে সফল করার জন্য আমার যা করার করব”। কিন্তু এরপরেই তাঁর এহেন টুইট নিয়ে স্বাভাবিক ভাবেই ফের চওড়া হচ্ছে রাজ্য রাজ্যপালের সংঘাত।

এদিন রাজ্যপালের এই টুইটের পরেই কড়া জবাব দিয়েছেন অমিত মিত্র। অর্থদফতরের উপদেষ্টাও পরপর বেশ কয়েকটি টুইট করে লেখেন, “আমি স্থম্ভিত, যখন ওই চার পাতার চিঠির জবাব আমি রাজ্যপালকে সমস্ত তথ্য-সহ দিয়েছিলাম। সমস্ত বিনিয়োগ ও কর্মসংস্থানের পরিসংখ্যানও দেওয়া হয়েছিল। আমার মনে হয় রাজ্যপালের ভুলে যাওয়ার রোগ হয়েছে। তাঁর কী সাহায্যের প্রয়োজন আছে নাকি এটি একটি ম্যাকিয়াভেলিয়ান ভ্রান্তিনাকি এটি একটি ম্যাকিয়াভেলিয়ান ভ্রান্তি”।

এরপরেই ফের অমিত মিত্রের টুইটকে রিটুইট করে রাজ্যপাল আবার লেখেন, “অমিত মিত্রের কাছে এত নিচু প্রতিক্রিয়া আশা করিনি। আমার উত্থাপিত করা বাকি পাঁচটি প্রশ্নের উত্তর কোথায়?” এরপরের টুইট গুলিতে রাজ্যপাল ফের সেই পাঁচটি প্রশ্নের উল্লেখ করে অমিত মিত্রকে সেই উত্তর দেওয়ার জন্য আবেদন করেন।