সৌরভের সঙ্গে মতবিরোধ! কোহলিদের পারফরম্যান্স নিয়ে কী বক্তব্য আশিস নেহরার?

সৌরভের সঙ্গে মতবিরোধ! কোহলিদের পারফরম্যান্স নিয়ে কী বক্তব্য আশিস নেহরার?
সৌরভের সঙ্গে মতবিরোধ! কোহলিদের পারফরম্যান্স নিয়ে কী বক্তব্য আশিস নেহরার?

ওভাল টেস্টে ইংরেজদের বিরুদ্ধে দুরন্ত জয় ছিনিয়ে নিয়েছে কোহলি ব্রিগেড। ১৯৭১ সালে এই মাঠে শেষবার জিতেছিল অজিত ওয়াদেকরের ভারত। দীর্ঘ ৫০ বছর পর ফের কেনিংটন ওভালে টিম ইন্ডিয়ার জয়জয়কার। হেডিংলেতে হারের বদলা নিয়ে ওভালে ইংরেজদের ১৫৭ রানে দুরমুশ করেছে কোহলি অ্যান্ড কোং। আর ম্যাচ জেতার পরই ট্যুইটার ভেসে যাচ্ছে অভিনন্দনে। স্বয়ং বিসিসিআই প্রেসিডেন্ট সৌরভ গাঙ্গুলিও দারুণ উচ্ছ্বসিত এই জয়ে৷ ভারতীয়রা ওভাল জয় করার পরই ট্যুইটারে সৌরভ লেখেন, ‘দারুণ শো। স্কিল তো পার্থক্য গড়ে দেয় বটেই, তবে সবচেয়ে বড় পার্থক্য এনে দেয় চাপ গ্রহণের ক্ষমতা। ভারতীয় ক্রিকেট এখন বাকিদের থেকে অনেক এগিয়ে।’

কিন্তু তাঁর প্রাক্তন অধিনায়কের সঙ্গে একেবারেই সহমত হতে পারলেন না আশিস নেহরা। বিরাটদের পারফরম্যান্স নিয়ে দাদার মতবিরোধিতা করলেন এই প্রাক্তন ভারতীয় পেসার। নেহরাজির মতে, ভারত যে অন্য সকলের চেয়ে ১০০% এগিয়ে তাতে তিনি একমত নন। বরং ভারতের পাশাপাশি রয়েছে নিউজিল্যান্ডও। তিনি বলেন, “ভারতের চাপ গ্রহণের ক্ষমতা দারুণ তা অবশ্যই ঠিক, কিন্তু অন্য দলের থেকে অনেকটা এগিয়ে এ কথার সঙ্গে আমি সহমত নই।”

এর কারণ হিসেবে নেহরাজির বক্তব্য, “যদি পরিসংখ্যান দেখা যায়, তাহলে বলা যায় নিউজিল্যান্ড আমাদের টেস্ট বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপে হারিয়েছে। হতে পারে এটা সৌরভের মত, কিন্তু আমার বিশ্বাস একমাত্র ভারতই এগিয়ে নয়৷ সঙ্গে নিউজিল্যান্ডও এগিয়ে। আমি মনে করি, গত এক-দেড় বছরে ভারত এবং নিউজিল্যান্ড সমানে সমানে রয়েছে।” তবে ইংল্যান্ডের মাটিতে ভারতের চাপ নেওয়ার ক্ষমতার প্রশংসাও শোনা গিয়েছে তাঁর মুখে।

প্রসঙ্গত, আগামী শুক্রবার থেকে ম্যাঞ্চেস্টারে শুরু হতে চলেছে ভারত-ইংল্যান্ড পঞ্চম তথা শেষ টেস্ট। ওভালে জিতে এমনিতেই তেতে রয়েছেন কোহলি অ্যান্ড কোং। এবার ম্যাঞ্চেস্টারে জিতে সিরিজ ৩-১ করার পালা। অবশ্য ড্র করলেও সিরিজ ২-১ জিতবে ভারত। তবে আপাতত জয়ের লক্ষ্যেই মাঠে নামবে টিম ইন্ডিয়া।