ফের বাড়ছে করোনা! সংক্রমণের দ্বিতীয় ঢেউ রুখতে সচেতনতামূলক প্রচার বিধাননগর পুলিশ কমিশনারেটের

ফের বাড়ছে করোনা! সংক্রমণের দ্বিতীয় ঢেউ রুখতে সচেতনতামূলক প্রচার বিধাননগর পুলিশ কমিশনারেটের
ফের বাড়ছে করোনা! সংক্রমণের দ্বিতীয় ঢেউ রুখতে সচেতনতামূলক প্রচার বিধাননগর পুলিশ কমিশনারেটের / নিজস্ব ছবি

নিজস্ব প্রতিবেদনঃ কলকাতাঃ গতবছর থেকেই করনার জেরে মানুষ নাজেহাল। গতবছর করোনা সংক্রমনের জেরে প্রায় কয়েকমাস ধরে চলেছে লকডাউন। মানুষ ছিল ঘরবন্দী। বন্ধ ছিল অফিস, আদালত, ধর্মীয় স্থান, নানা ধরনের অনুষ্ঠান বাড়ি সহ ট্তসা-ট্রাম-বাস চলাচলও বন্ধ ছিল। শুধুমাত্র চিকিৎসাকেন্দ্র ও জরুরি পরিষেবা চালু ছিল। তারপর দীর্ঘ সময় পর আনলক পর্বে ধীরে ধীরে সবই সচল হতে শুরু করে। পরিস্থিতি অনেকটাই স্বাভাবিক হয়ে উঠে। শুরু হয়েছে করোনা টিকা প্রদানের কাজও। তবে ফের ভারতবর্ষে করোনার দ্বিতীয় ঢেউ আছড়ে পড়েছে। তাই আবারও চিন্তিত প্রশাসন।

প্রসঙ্গত করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ে মানুষকে সচেতন করতে আরও একবার পথে নামল বিধাননগর পুলিশ কমিশনারেট। আজ বিধাননগর পুলিশ কমিশনারেট এর পক্ষ থেকে কমিশনারেটের বেশকিছু জায়গায় করোনা সচেতনতা মূলক প্রচার চালানো হয়। পথচলতি সাধারণ মানুষ থেকে শুরু করে গাড়ী চালক সকলের মুখে মাস্ক পরিয়ে দেন তাঁরা।

উল্লেখ্য পশ্চিমবঙ্গে ভোট প্রচার শুরু হয়েছে জোরকদমে। ভোট নিয়ে ব্যস্ত থাকার মাঝে বাংলায় বাড়লো করোনা আক্রান্তের সংখ্যা, যদিও গত বছরের তুলনায় তা নগণ্য। কিন্তু আক্রান্তের সংখ্যা বৃদ্ধি ভাবাচ্ছে বিশেষজ্ঞদের। পশ্চিমবঙ্গে গত ৮ দিনে আক্রান্তের সংখ্যা ২০ হাজার ছাড়িয়েছে। আর সেকারণেই করোনাকে রুখতে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীদের কোমর বেধে নামার পরামর্শ দিয়েছে প্রধানমন্ত্রী।

অন্যদিকে বহু মানুষ করোনাকে উপেক্ষা করে মাস্ক ছাড়াই রাস্তায় চলাফেরা করছে। করোনার এই দ্বিতীয় ঢেউ যাতে বৃহৎ আকারে আছড়ে না পড়তে পারে তার জন্য সচেতনতা মূলক প্রচার শুরু করল বিধাননগর কমিশনারেট পুলিশ। মাস্কবিহীন পথ চলতি মানুষদের শুরু করে গাড়িচালক, দোকানদার সকলের হাতে মাস্ক তুলে দিয়ে সচেতনতামূলক মাইকিং প্রচার চালাচ্ছে বিধাননগর কমিশনারেট পুলিশ।

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন.