মঙ্গলবার, ১৭ মে, ২০২২

বাবুল সুপ্রিয়কে পদত্যাগের নির্দেশ! মন্ত্রীত্ব হারিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় কী লিখলেন তিনি?

০৫:০৭ পিএম, জুলাই ৭, ২০২১

বাবুল সুপ্রিয়কে পদত্যাগের নির্দেশ! মন্ত্রীত্ব হারিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় কী লিখলেন তিনি?

মন্ত্রীত্ব থেকে পদত্যাগের নির্দেশ দেওয়া হয়েছিল বাবুল সুপ্রিয়কে৷ সে নির্দেশ অক্ষরে অক্ষরে পালন করলেন তিনি। তবে ইস্তফা দিয়ে স্বাভাবিকভাবেই তাঁর মন খুবই খারাপ। তাই ব্যথিত মনে সোশ্যাল মিডিয়ায় সে কথা জাহির করলেন বাবুল। আজ নিজের পদত্যাগের কথা জনসমক্ষে জানিয়ে ফেসবুক বার্তায় বিশেষ কিছু বার্তাও দিতে দেখা গেল আসানসোলের সাংসদকে।

এদিন ফেসবুকে বাবুল লিখেছেন, "হ্যাঁ, যেখানে ধোঁয়া দেখা যাচ্ছে, সেখানে কিছু আগুন তো রয়েছেই। যাঁরা আমাকে ভালোবাসে, সেই সব বন্ধু বা মিডিয়ার ফোন ধরতে পারছি না। হ্যাঁ, মন্ত্রিসভা থেকে আমাকে পদত্যাগ করতে বলা হয়েছিল এবং আমি পদত্যাগ করেছি।" একইসঙ্গে বাবুলের সংযোজন, "মাননীয় প্রধানমন্ত্রীকে কৃতজ্ঞতা ও ধন্যবাদ আমাকে মন্ত্রীসভায় স্থান দিয়ে দেশের মানুষের সেবা করার সুযোগ দেওয়ার জন্য। কোনওরকম দুর্নীতির অভিযোগ ছাড়াই আমি কাজ করতে পেরেছি, তার জন্য আমি খুব খুশি। আসানসোলের মানুষকেও অনেক ধন্যবাদ, আমার উপর ভরসা রেখে বিপুল ভোটে জয়ী করার জন্য।"

তবে একইসঙ্গে, নিজের মন্ত্রীত্ব ছাড়ায় ব্যথিত এবং হতাশ বাবুল। ফেসবুকে সে অনুভূতিও চেপে রাখেননি তিনি। নিজের সহকর্মীদের আগামীর শুভেচ্ছা জানিয়ে তিনি আরও লেখেন, "যারা এবার দায়িত্ব পেতে চলেছেন, সেই সকল সহকর্মীদের শুভেচ্ছা। নিজের জন্য খুবই খারাপ লাগছে। কিন্তু ওঁদের জন্য খুব ভালো লাগছে। আপনারা এগিয়ে চলুন"। উল্লেখ্য, ২০১৪ সালে লোকসভা ভোটে জয়লাভের পর নগরোন্নয়ন দপ্তরের প্রতিমন্ত্রী হয়েছিলেন বাবুল সুপ্রিয়। এই মুহূর্তে সামলাচ্ছিলেন পরিবেশ ও বন দফতরের প্রতিমন্ত্রীর দায়িত্ব। তবে সেই দায়িত্ব থেকেই ইস্তফা দিলেন বাবুল।

https://www.facebook.com/195086033867546/posts/4273631919346250/

প্রসঙ্গত, আজ সন্ধ্যে ৬টায় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির মন্ত্রিসভার ব্যাপক রদবদলের আভাস পাওয়া গিয়েছে। কারা থাকছেন আর কারাই বা থাকছেন না, এ নিয়ে জল্পনা চলছেই। জানা গিয়েছে, নরেন্দ্র মোদির মন্ত্রীসভায় বাংলা থেকে চার নতুন মুখকে দেখা যেতে চলেছে৷ সূত্রের খবর, কেন্দ্রীয় মন্ত্রী হচ্ছেন নীশীথ প্রামাণিক, সুভাষ সরকার, শান্তনু ঠাকুর এবং জন বার্লা৷

ইতিমধ্যেই স্বাস্থ্য মন্ত্রীর পদ থেকে ইস্তফা দিয়েছেন হর্ষ বর্ধন। এ রাজ্য থেকে দেবশ্রী চৌধুরী ও বাবুল সুপ্রিয়ও পদত্যাগ করলেন। এছাড়াও বিজেপি যুব মোর্চার রাজ্য সভাপতি পদ থেকে ইস্তফা দিয়েছেন সৌমিত্র খাঁ'ও। সূত্রের খবর, দেবশ্রীকে সংগঠনের কাজের দায়িত্ব দিতে চলেছে বিজেপি। তবে সৌমিত্রর মন্ত্রীত্ব পাওয়ার কোনও সম্ভাবনা নেই বলেই জানা গিয়েছে।