মঙ্গলবার, ১৭ মে, ২০২২

বৈশাখীই প্রথম নয়, আগেও বান্ধবী ছিল শোভনের! বিস্ফোরক মন্তব্য রত্নার

০১:৩৬ পিএম, ডিসেম্বর ১৫, ২০২১

বৈশাখীই প্রথম নয়, আগেও বান্ধবী ছিল শোভনের! বিস্ফোরক মন্তব্য রত্নার

ফের একবার খবরের শিরোনামে উঠে এলেন শোভন-বৈশাখী ও রত্না। প্রায়ই তিন জনকে একে অপরের বিরুদ্ধে মুখ খুলতে শোনা যায়। একে অপরকে কড়া ভাষায় আক্রমণ করতেও ছাড়েন না। এবার ফের রত্না চট্টোপাধ্যায়ের কটাক্ষের শিকার হলেন শোভন চট্টোপাধ্যায় ও বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়। এমনকি বৈশাখীর স্বামী মনোজিৎ মণ্ডলকেও তুলোধনা করতে ছাড়লেন না শোভন-পত্নী।

ঘটনার শুরু দিন কয়েক আগে শোভন চট্টোপাধ্যায়ের করা একটি ফেসবুক লাইভ থেকে। সেই ফেসবুক লাইভে নিজেকে তিন সন্তানের পিতা হিসেবে তুলে ধরেছিলেন কলকাতার প্রাক্তন মেয়র। শোভন বলেছিলেন, “আমি শোভন চট্টোপাধ্যায় শপথ নিয়ে বলছি, দুই সন্তান নয়, আমার তিন সন্তান বর্তমান। সপ্তর্ষি চট্টোপাধ্যায়, সুহানি চট্টোপাধ্যায় এবং রিলিনা বন্দ্যোপাধ্যায়।” এই প্রসঙ্গেই মুখ খুললেন রত্না চট্টোপাধ্যায়। স্বামীর বিরুদ্ধে বিস্ফোরক মন্তব্য করলেন তিনি। এমনকি তাঁর আক্রমণের শিকার হলেন বৈশাখীর স্বামীও।

সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে শোভন-পত্নী মন্তব্য করেন, "শোভন অন্যের সন্তানকে নিজের সন্তান বলছেন। ওই সন্তানের বাবা (অর্থাৎ মনোজিৎ) এমন শুনে কীভাবে চুপচাপ থাকতে পারেন! মানুষ কতটা বোধশক্তিহীন হলে এমন হয়! আমি এখন কোনও শব্দ প্রয়োগ করলেই বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায় আইনি নোটিশ ধরিয়ে দেবেন। বলবেন মনোজিৎ মণ্ডলকে অপমান করা হয়েছে। কিন্তু, যাঁর স্ত্রী-সন্তানকে অন্য কেউ নিয়ে চলে যায় এবং তারপরেও তিনি পচাপ থাকেন, যাঁর সন্তানকে অন্য কেউ নিজের সন্তান বলে পরিচয় দেয়, সেই পরিবারের বিষয়ে যত কম বলব ততই ভালো। আমার সমাজে যে সম্মান আছে সেটা বজায় থাকবে।"

পাশাপাশি তিনি এও দাবি করেন যে, বৈশাখীই প্রথম নয়। আগেও বান্ধবী ছিল শোভনের। কিন্তু তার মাঝেও পরিবারকে সময় দিতেন তিনি। রত্নার কথায়, "তাঁর গার্লফ্রেন্ড হয় নি, এইসব বাজে কথা বলে লাভ নেই। শোভন চ্যাটার্জীর জীবনে বৈশাখী ব্যানার্জিই প্রথম নারী নন। পতি পত্নীর মাঝে অনেকবার অন্য নারী এসেছে, কিন্তু গার্লফ্রেন্ডের জন্য স্ত্রী সন্তানকে কখনো ছেড়ে যাননি শোভন চ্যাটার্জি। সবকিছুর পরেও তিনি পরিবারকে একটা আলাদা জায়গা দিতেন।" তিনি আরও বলেন, এখন এই সব মানুষগুলির সঙ্গে কীভাবে দিনযাপন করছেন শোভন চ্যাটার্জি তা তিনি বুঝে উঠতেই পারছেন না।