চারিদিক ধ্বংসস্তূপে পরিণত! ছিন্নভিন্ন মণ্ডপেই পুজো করলেন পুরোহিত, ভাইরাল বাংলাদেশের ভিডিও

চারিদিক ধ্বংসস্তূপে পরিণত! ছিন্নভিন্ন মণ্ডপেই পুজো করলেন পুরোহিত, ভাইরাল বাংলাদেশের ভিডিও
চারিদিক ধ্বংসস্তূপে পরিণত! ছিন্নভিন্ন মণ্ডপেই পুজো করলেন পুরোহিত, ভাইরাল বাংলাদেশের ভিডিও

বংনিউজ ২৪x৭ ডিজিটাল ডেস্কঃ চারিদিক ধ্বংসস্তূপে পরিণত হয়েছে। মণ্ডপ একেবারে নষ্ট হয়ে গেছে। দেবী মূর্তির চিহ্নমাত্র নেই। কিন্তু তারপরেও সুন্দর করে, সযত্নে সাজানো নৈবেদ্য, প্রসাদ, ধূপ-ধুনো। আর পুরোহিত মহাশয় যত্ন ও নিষ্ঠা সহকারে ঘণ্টাধ্বনি সহযোগে দেবী মহামায়ার অর্চনা করছেন। পাশে পুরোহিত মহাশয়কে পুজোর আয়োজনে সাহায্য করছেন মহিলারা।

সম্প্রতি বাংলাদেশের এমনই একটি ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে। উল্লেখ্য, বাংলাদেশে শারদোৎসবে দুষ্কৃতী হামলার পর সোশ্যাল মিডিয়া জুড়ে সমালোচনা এবং প্রতিবাদের ঝড় উঠেছে। বাংলাদেশের নোয়াখালিতে ইসকন মন্দিরে হামলা ও একাধিক জায়গায় ভাঙচুর, অগ্নিসংযোগের ঘটনায় উত্তাল সামাজিক মাধ্যমও। এরই মধ্যে ভাইরাল হয়েছে এই ভিডিওটি। যদিও এই ভিডিওটির সত্যতা যাচাই করেনি বংনিউজ ২৪x৭ ডিজিটাল।

অভিযোগ, অষ্টমীর রাত থেকে বিভিন্ন পুজোমণ্ডপে ভাঙচুর ও অগ্নিসংযোগ করে কিছু দুষ্কৃতী। নোয়াখালিতে ইসকনের মন্দিরেও হামলা চালানো হয়। শতাধিক দুষ্কৃতী মন্দিরে ঢুকে হামলা চালায় ও ভাঙচুর করে। অগ্নিসংযোগ করা হয়।

এদিকে, ইসকনের জাতীয় যোগাযোগ সংক্রান্ত অধিকর্তা ব্রজেন্দ্র নন্দন দাসের অভিযোগ, হামলায় ৩ জন ভক্তের মৃত্যু হয়েছে। ইসকনের পক্ষ থেকে বাংলাদেশ সরকারের কাছে দ্রুত তদন্ত ও ভবিষ্যতে এই ধরনের ঘটনা যাতে না ঘটে, সেই ব্যবস্থা নেওয়ার দাবি জানানো হয়েছে। ঘটনায় দৃষ্টি আকর্ষণ করে রাষ্ট্রপুঞ্জেও চিঠি দিয়েছে ইসকন কর্তৃপক্ষ। Secretary General of the United Nations অ্যান্তনিও গুটারিসের উদ্দেশে লেখা চিঠিতে ইসকনের পক্ষ থেকে লেখা হয় ওই হামলার ঘটনার কথা।

অন্যদিকে, উৎসবের মরশুমে একের পর এক অশান্তির ঘটনায় কড়া অবস্থান নিয়েছে বাংলাদেশ সরকারও। দুষ্কৃতীদের চিহ্নিত করে তাঁদের বিরুদ্ধে উপযুক্ত আইনি ব্যবস্থা নেওয়ার আশ্বাস দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনি জানান, ‘ধর্ম যার যার উৎসব সবার। প্রত্যেকে যার যার নিজস্ব ধর্ম, স্বাধীনভাবে আনন্দের সঙ্গে পালন করবেন বাংলাদেশে। কিছু দুষ্টচক্র দেশের এই নীতিকে নষ্ট করার চক্রান্ত করে। শক্ত হাতে সরকার তা দমন করবে। তদন্ত শুরু হয়েছে। যারা ঘটনা ঘটিয়েছে, তাদের চিহ্নিত করে কঠোর পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে।’

আবার বাংলাদেশের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান জানিয়েছেন, হামলার ঘটনায় প্রায় ৯০ জনকে এখনও পর্যন্ত গ্রেফতার করা হয়েছে। অশান্তি রোধে বাংলাদেশ সরকারের সদর্থক ভূমিকার কথা উল্লেখ করে বিবৃতি দিয়েছে বিদেশমন্ত্রকও। ভারতের বিদেশমন্ত্রকের মুখপাত্র অরিন্দম বাগচি জানান, ‘বাংলাদেশে ধর্মীয় জমায়েতের উপর হামলার কিছু খবর আমরা পেয়েছি। বাংলাদেশ সরকার কঠোরভাবে পদক্ষেপ করছে। দুর্গাপুজো বাংলাদেশে অনুষ্ঠিত হচ্ছে। ভারতীয় হাই কমিশন বাংলাদেশের সরকারের সঙ্গে ঘনিষ্ঠ যোগাযোগ রেখে চলেছে।’