মঙ্গলবার, ১৭ মে, ২০২২

নিজেকে গোছাতে চেয়ে রাজনীতি থেকে সরে দাঁড়ালেন বাবুল!

০৫:৫৯ পিএম, জুলাই ৩১, ২০২১

নিজেকে গোছাতে চেয়ে রাজনীতি থেকে সরে দাঁড়ালেন বাবুল!

পরিবারের সঙ্গে আলোচনা করেই রাজনীতি থেকে সরে দাঁড়ানোর সিদ্ধান্ত নিলাম। সমস্ত জল্পনার অবসান করে ফেসবুক পোস্টে একথা জানিয়ে রাজনীতি থেকে সরে দাঁড়ালেন প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয়। একসঙ্গে আপাতত অন্য কোন দলে যোগ দিচ্ছেন না বলেও জানান এদিন।

মন্ত্রীত্ব যাওয়ার পর থেকেই বেশ কিছুদিন ধরেই বাবুল সুপ্রিয়র সোশ্যাল মিডিয়ার পোস্ট নিয়ে তৈরি হয়েছিল জল্পনা। তবে এদিন সমস্ত জল্পনার অবসান ঘটান তিনি। ফেসবুকে তিনি লেখেন, "চললাম.. আলবিদা। সবার সব কথা শুনলাম – বাবা, (মা) স্ত্রী, কন্যা, দুএকজন প্রিয় বন্ধুবান্ধব.. সবটুকু শুনে বুঝেই অনুভব করেই বলি, অন্য কোন দলেও যাচ্ছি না। বিগত কয়েকদিনে বার বার মাননীয় অমিত শাহ ও মাননীয় নাড্ডাজির কাছে রাজনীতি ছাড়ার সঙ্কল্প নিয়ে গেছি এবং আমি ওঁদের কাছে চিরকৃতজ্ঞ যে প্রতিবারই ওঁরা আমাকে নানাভাবে অনুপ্রাণিত করে ফিরিয়ে দিয়েছেন।"

তবে হঠাৎ করে কেন রাজনীতি ছাড়ার সিদ্ধান্ত নিলেন তিনি সেই উত্তরও জানিয়েছেন নিজের পোস্টে। লিখেছেন, "প্রশ্ন উঠবেই কেনই বা রাজনীতি ছাড়তে গেছিলাম? মন্ত্রিত্ব চলে যাওয়ার সাথে তার কি কোনো সম্পর্ক আছে? হ্যাঁ আছে – কিছুটা তো নিশ্চয় আছে ! তঞ্চকতা করতে চাইনা তাই সে প্রশ্নের উত্তর দিয়ে গেলেই তা সঠিক হবে-আমাকেও তা শান্তি দেবে।"

https://www.facebook.com/BabulSupriyoOfficial/posts/4344085975634177

পরপর দুবার আসানসোল থেকে লোকসভা নির্বাচনে যেতে সাংসদ হন বাবুল সুপ্রিয়। কিন্তু বিগত কয়েক দিন ধরে দলের সঙ্গে একাধিক তার মতান্তরে বিষয়টি সামনে আসছিল। এবার সরাসরি নিজের মতামত জানিয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে দল ত্যাগ করলেন তিনি। কিন্তু একসঙ্গে জানিয়েছেন এখনই অন্য কোনও রাজনৈতিক দলে যোগদান করবেন না। পাশাপাশি এখন নিজেকে একটু গুছিয়ে নিয়ে সময় নিতে চাইছেন বিজেপির এই প্রাক্তন মন্ত্রী।