করোনার ছিলই, নতুন বিপদ বিজেপির কৃষিবিল “মরোনা”, কেন্দ্রের বিরুদ্ধে চরম ক্ষোভ প্রকাশ করলেন মমতা

করোনার ছিলই, নতুন বিপদ বিজেপির কৃষিবিল
করোনার ছিলই, নতুন বিপদ বিজেপির কৃষিবিল "মরোনা", কেন্দ্রের বিরুদ্ধে চরম ক্ষোভ প্রকাশ করলেন মমতা

কৃষি বিল পাস করা নিয়ে কেন্দ্র সরকারের বিরুদ্ধে সুর চড়ালেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। আজ নবান্নে সাংবাদিক বৈঠকে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, গতকাল রাজ্যসভায় বিরোধীরা যেভাবে বিক্ষোভ দেখিয়েছেন তাতে আমি গর্বিত। কোন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে নয়, একটি দলের চেয়ারপার্সন হিসাবে বলছি, তৃণমূল কংগ্রেস ও বিরোধীরা রাজ্যসভায় অন্যায়ের প্রতিবাদ করেছে। কোন অন্যায় হচ্ছে দেখে সেটা মুখ বুজে সহ্য করা বিরোধীদের কাজ নয়। বিরোধীদের প্রতিবাদ সত্ত্বেও গায়ের জোরে ডিভিশন না দিয়ে বিল পাশ করিয়ে নিয়েছে বিজেপি বলে দাবি করেন তিনি।

একদিকে করোনা পরিস্থিতি অন্যদিকে কৃষি বিল নিয়ে তুলকালাম, এই দুই নিয়ে রীতিমতো ক্ষুব্ধ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি বলেন, বিজেপি ১৯৭৩ এর কথা মনে করিয়ে দিচ্ছে। দেশের গণতন্ত্র গায়ের জোরে নষ্ট করছে ওরা। ডেরেক ও’ব্রায়েন এবং দোলা সেন প্রসঙ্গে তিনি বলেন, তাঁরা যেভাবে প্রতিবাদ দেখিয়েছে তাঁদের জন্য আমি গর্ব অনুভব করছি। একইসঙ্গে তিনি বলেন, একদিকে করোনা, অন্যদিকে বিজেপির এই বিল “মরোনা”, দুই বিপদের সঙ্গে লড়তে হবে। আগে বাজারে ফসলের দাম বাড়লে সাধারণ মানুষের স্বার্থে তা নিয়ন্ত্রণ করতে পারত রাজ্য। কিন্তু এই বিলে সেই সমস্ত ক্ষমতা কেড়ে নেওয়া হয়েছে বলে ক্ষোভ প্রকাশ করেন তিনি। মুখ্যমন্ত্রী জানান, বিজেপি দেশের লজ্জা। তারা চাষীদের সমস্ত সম্পদ লুট করে দেশকে দুর্ভিক্ষের দিকে ঠেলে দিচ্ছে। তিনি আরও বলেন, রবিবার রাজ্যসভায় এই বিল যেভাবে পাস হয়েছে তা অনৈতিক। দিনটিকে “কালো রবিবার” বলেও অভিহিত করেন তিনি। জানান, গণআদালতে হত্যা করা হয়েছে সংবিধানের ।

এখানেই শেষ নয় আগামী দিনে বৃহত্তর আন্দোলনে যাওয়ার হুঁশিয়ারিও দেন মুখ্যমন্ত্রী। তিনি জানান, সমস্ত রাজনৈতিক দলকে এক হয়ে বিজেপির মানববিরোধী নীতির বিরোধিতা করতে হবে।

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন.