রাজ্যে করোনা পরিস্থিতি আরও ভয়ঙ্কর হয়ে উঠছে! ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্তের সংখ্যা সাড়ে ১৭ হাজারের বেশি

বংনিউজ২৪x৭ ডিজিটাল ডেস্কঃ রাজ্যে ক্রমশ করোনার তাণ্ডব আরও বেড়েই চলেছে। ভয়ঙ্কর থেকে আরও ভয়ঙ্কর হচ্ছে রাজ্যের করোনা পরিস্থিতি। সংক্রমণ যেমন বেড়েই চলেছে, ঠিক একইভাবে বাড়ছে মৃত্যুর সংখ্যাও।

স্বাস্থ্য দফতরের পরিসংখ্যান অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে নতুন করে সংক্রমিত হয়েছেন ১৭ হাজার ৫১২ জন। এ নিয়ে রাজ্যে মোট করোনা সংক্রমিতের সংখ্যা ৮ লক্ষ ২৮ হাজার ৩৬৬। রাজ্যে গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু হয়েছে ১০৩ জনের। এই নিয়ে রাজ্যে করোনায় মোট মৃত্যু হয়েছে ১১ হাজার ৪৪৭ জনের। এর পাশাপাশি গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাকে জয় করে সুস্থ হয়েছেন ১৪ হাজার ৩৭৪ জন। কোভিড জয় করে সুস্থ হয়ে উঠেছেন এ পর্যন্ত রাজ্যের ৭ লক্ষ ১৭ হজার ৭৭২ জন। এই মুহূর্তে রাজ্যের সুস্থতার হার কম। যা উদ্বেগ আরও বাড়াচ্ছে। সুস্থতার হার কমে দাঁড়াল ৮৪.৮৬ শতাংশ। উল্লেখ্য, গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে করোনা পরীক্ষা হয়েছে ৫৬ হাজার ২৯৭ জনের। এর মধ্যে ৮.০৬ শতাংশ রিপোর্ট পজিটিভ।

রাজ্য স্বাস্থ্য দফতরের পরিসংখ্যান অনুযায়ী, আজকেও কলকাতার থেকে উত্তর ২৪ পরগনায় দৈনিক আক্রান্তের সংখ্যা বেশি। একদিনে এই জেলায় সংক্রমিত হয়েছেন ৩৯৩৪ জন। কলকাতায় একদিনে আক্রান্তের সংখ্যা ৩৮৮৫। পাশাপাশি একদিনে কলকাতায় করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে ১৯ জনের, উত্তর ২৪ পরগনায় ২৬ জনের।

দক্ষিণবঙ্গের পাশাপাশি উত্তরবঙ্গেও চোখ রাঙাচ্ছে করোনা। সংক্রমণ সবচেয়ে কম উত্তরবঙ্গের দুই জেলা- কালিম্পং, আলিপুরদুয়ার। দুই জেলায় দৈনিক সংক্রমণ যথাক্রমে ৫২ এবং ৫৪।

এদিকে করোনা সংক্রমণ রুখতে, রাজ্যে জারি হয়েছে আংশিক লকডাউন। শুক্রবারই এই সংক্রান্ত নির্দেশিকা জারি হয়। এরপর আজ ফের আংশিক লকডাউনের সংশোধিত নির্দেশিকা জারি হয়েছে।

সেই নির্দেশিকা অনুযায়ী, অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ থাকবে শপিংমল, সিনেমাহল রেস্তরাঁ, জিম, স্পা, বিউটি পার্লার। সারাদিনের একটা নির্দিষ্ট খোলা থাকবে দোকান-বাজার। অত্যাবশ্যকীয় পণ্যের ক্ষেত্রে ছাড় রয়েছে। সময় ৫০ জন নিয়ে বিয়েবাড়ির বা অন্য সামাজিক অনুষ্ঠান করা যাবে, তবে কঠোরভাবে করোনাবিধি মানতে হবে। এছাড়াও রাজ্যে করোনা চিকিৎসার অন্যতম মূল উপকরণ অক্সিজেন জোগানে একাধিক পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়েছে। অন্য়ান্য রাজ্য থেকেও অক্সিজেন কেনা হবে।

অন্যদিকে, করোনা রোগীদের মৃত্য়ুতে সৎকারের ক্ষেত্রেও নেওয়া হয়েছে বড় সিদ্ধান্ত, কলকাতা পুরসভার পক্ষ থেকে। নিমতলা শ্মশানে শুধুমাত্র করোনায় মৃতদের দাহ করা হবে বলে জারি হয়েছে বিজ্ঞপ্তি।