ছাপিয়ে গেল অতীতের সব রেকর্ড, দেশে একদিনে কোভিড আক্রান্ত প্রায় ১ লক্ষ ২৭ হাজার

ছাপিয়ে গেল অতীতের সব রেকর্ড, দেশে একদিনে কোভিড আক্রান্ত প্রায় ১ লক্ষ ২৭ হাজার
ছাপিয়ে গেল অতীতের সব রেকর্ড, দেশে একদিনে কোভিড আক্রান্ত প্রায় ১ লক্ষ ২৭ হাজার / প্রতীকী ছবি

বংনিউজ২৪x৭ ডিজিটাল ডেস্কঃ ক্রমশ ভয়াবহ হচ্ছে করোনা পরিস্থিতি। প্রতিদিন বাড়ছে করোনার সংক্রমণ। প্রতিদিন নতুন নতুন রেকর্ড তৈরি হচ্ছে দৈনিক আক্রান্তের সংখ্যার। দেশের মধ্যে কয়েকটি রাজ্যের করোনা পরস্থিতি বেশ জটিল। পাল্লা দিয়ে বাড়ছে মৃত্যুর হারও। সুস্থতার হারও বেশ কম।

করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ে নাজেহাল দেশ। এদিকে বৃহস্পতিবার দেশের দৈনিক আক্রান্তের সংখ্যা পেরিয়ে গিয়েছে ১ লক্ষ ১৫ হাজারের গণ্ডি। অথচ গত বছর যে সময়ে দেশে করোনার সংক্রমণ একেবারে চরম শিখরে ছিল। তখনও সংখ্যাটা এত বেশি ছিল না। এই নিয়ে গত চারদিনের মধ্যে তিনদিনে দেশের দৈনিক আক্রান্তের সংখ্যা লক্ষাধিক পার করে গেছে। আর সংক্রমণের এই পরিমাণ বাড়বাড়ন্ত প্রশাসনের কপালে চিন্তার ভাঁজ আরও স্পষ্ট করেছে। এই সংক্রমণের হার আতঙ্ক সৃষ্টির জন্য যথেষ্ট।

বৃহস্পতিবার সকালে স্বাস্থ্য ও পরিবারকল্যাণ মন্ত্রকের দেওয়া পরিসংখ্যান অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ১ লক্ষ ২৬ হাজার ৭৮৯ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। যা আগের দিনের থেকে প্রায় ১০ হাজার বেশি। আপাতত দেশে মোট করোনা আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১ কোটি ২৯ লক্ষ ২৮ হাজার ৫৭৪ জন। স্বাস্থ্য ও পরিবারকল্যাণ মন্ত্রকের দেওয়া পরিসংখ্যান অনুযায়ী, আপাতত মোট মৃতের সংখ্যা ১ লক্ষ ৬৬ হাজার ৮৬২ জন। এর মধ্যে গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু হয়েছে ৬৮৫ জনের। এই সংখ্যাটাও আগের দিনের থেকে অনেকটা বেশি।

অন্যদিকে, গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে করোনামুক্ত হয়েছেন ৫৯ হাজার ২৫৮ জন। যা দৈনিক আক্রান্তের থেকে অনেক কম। এর জেরে দেশের মোট অ্যাকটিভ কেস বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৯ লক্ষ ১০ হাজার ৩১৯ জন। দেশে এখনও পর্যন্ত করোনা থেকে সুস্থ হয়েছেন বাড়ি ফিরেছেন ১ কোটি ১৮ লক্ষ ৫১ হাজার ৩৭৩ জন। এখনও পর্যন্ত দেশে মোট টিকা পেয়েছেন ৯ কোটি ১ লক্ষ ৯৮ হাজার ৬৭৩ জন।

বর্তমানে আমেরিকার থেকে ভারতে অনেক বেশি দ্রুত গতিতে ছড়াচ্ছে করোনা ভাইরাস৷ দেশের মধ্যে মহারাষ্ট্র, গুজরাত, পঞ্জাব এবং কর্ণাটকের দৈনিক সংক্রমণ সবথেকে বেশি। সরকারি হিসেবে মহারাষ্ট্রে মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৩১ লক্ষ ৭৩ হাজার ২৬১ আর মৃত্যু হয়েছে ৫৬,৬৫২ জনের৷ গত ২৪ ঘণ্টায় মহারাষ্ট্রে নতুন করে করোনা আক্রান্ত হয়েছেন ৫৯,৯০৭ জন আর মৃত্যু হয়েছে ৩২২ জনের। মহারাষ্ট্র জুড়ে ইতিমধ্যেই চালু হয়েছে রাত্রিকালীন কার্ফু।

এছাড়া কেরলে আক্রান্ত ১১ লক্ষ ৪৪ হাজার ৫৯৪ জন। মৃত্যু হয়েছে ৪,৭১০। গত ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত হয়েছে ৩,৫০২ জন। কর্ণাটকে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১০ লক্ষ ৩৩ হাজার ৫৬০ আর মৃত্যু হয়েছে ১২,৭৩১ জনের। অন্ধ্রপ্রদেশে আক্রান্ত ৯ লক্ষ ১৩ হাজার ২৭৪ জন। মৃত্যু হয়েছে ৭,২৬২ জনের।

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন.