ভোট দিয়ে বেরিয়েই নির্বাচন কমিশনের ভূমিকায় সরব দেব, কী অভিযোগ তুললেন সাংসদ?

ভোট দিয়ে বেরিয়েই নির্বাচন কমিশনের ভূমিকায় সরব দেব, কী অভিযোগ তুললেন সাংসদ?
ভোট দিয়ে বেরিয়েই নির্বাচন কমিশনের ভূমিকায় সরব দেব, কী অভিযোগ তুললেন সাংসদ?

বংনিউজ২৪x৭ ডিজিটাল ডেস্কঃ আজ ৫ জেলার ৩৪ আসনে ভোটগ্রহণ সম্পন্ন হল সপ্তম দফায়। আর আজ ভোট দিয়েই নির্বাচন কমিশনের বিরুদ্ধে সমালোচনায় সরব হতে দেখা গেল অভিনেতা তথা সাংসদ দেবকে।

এদিন দক্ষিণ কলকাতায় নিজের আবাসনের মধ্যেই একটি স্কুলে ভোট দেওয়ার পর, কমিশনের ভুমিকার সমালোচনা করেন ঘাটালের সাংসদ দেব। তিনি বলেন, ‘কমিশন যেভাবে কাজ করছে, তাতে নিঃসন্দেহে বিরোধী দল বেশি সাহায্য পাচ্ছে।’

এর পাশাপাশি বর্তমান করোনা পরিস্থিতির জন্য নির্বাচন কমিশনকে কাঠগড়ায় তোলেন তিনি। বিধানসভা নির্বাচনে রাজ্য জুড়ে প্রচার করেছেন দেব। বারবার তিনি করোনাবিধি মেনে চলার জন্য সবাইকে সতর্ক করেছেন। পাশাপাশি করোনাবিধি না মানার জন্য দলমত নির্বিশেষে রাজনৈতিক নেতাদের সমালোচনাও করেছেন তিনি৷  এদিন অবশ্য কমিশনের ভূমিকা নিয়েই বেশি সরব হন তৃণমূল সাংসদ৷

আজ ভোট দিয়ে বেরিয়ে তিনি বলেন, ‘করোনাবিধি মেনে সবাই ভোট দিন। চারদিকে যে পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে, মনে হয় না সরকার ক্ষমতায় থাকলে এরকম হত৷ এক জায়গার অক্সিজেন অন্য জায়গায় চলে যাচ্ছে৷ আমরা তাই চাইছি সরকার যত তাড়াতাড়ি সম্ভব ক্ষমতায় চলে আসুক৷’

কমিশনের ভুমিকার সমালোচনা করে তিনি আরও বলেন যে, ‘এর আগের বারের মতো এবারেও বড় বড় স্টেডিয়ামগুলিকে হাসপাতালে পরিণত করা যেত৷ কমিশন অন্তত সেই ব্যবস্থা নিতে পারত৷ আর কমিশন যেভাবে কাজ করছে, তাতে নিঃসন্দেহে বিরোধী দলই বেশি সাহায্য পাচ্ছে৷ বারবার আমাদের দলের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে দফা কমিয়ে আনার জন্য। কিন্তু যে মুহূর্তে প্রধানমন্ত্রী ভার্চুয়াল সভার কথা বলেন, নির্বাচনী প্রচার বাতিল করে, তখনই সব দলের প্রচার, মিছিল বাতিল করে দেওয়া হয়।’

এ দিন টুইটারেও সাধারণ মানুষকে ভোট দেওয়ার জন্য আবেদন করেন দেব৷ তিনি লেখেন, ‘আজকে বাইরে বেরনোর জন্য আপনাকে নেতা হতে হবে না৷ বরং আজকে আপনিই ভোট দিয়ে নেতা তৈরি করতে পারবেন৷’ অন্য একটি ট্যুইটে তিনি লেখেন, ‘দয়া করে গিয়ে নিজের ভোট দিন৷ যেই জিতুক না কেন, বাংলার মানুষ যেন না হারে৷’

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন.