গ্যাংস্টার শুট আউট কাণ্ডে কেন্দ্রীয় এজেন্সি তদন্ত করুক: দিলীপ ঘোষ

গ্যাংস্টার শুট আউট কাণ্ডে কেন্দ্রীয় এজেন্সি তদন্ত করুক: দিলীপ ঘোষ
গ্যাংস্টার শুট আউট কাণ্ডে কেন্দ্রীয় এজেন্সি তদন্ত করুক: দিলীপ ঘোষ

বারবার বাংলাতেই কেন জঙ্গি বা গ্যাংস্টাররা ঘাঁটি গাড়ে?  এহেন প্রশ্ন তুলে এবার নিউটাউনের গ্যাংস্টার শুট আউট ঘটনায় কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থার তদন্তের দাবি করলেন রাজ্য বিজেপি সভাপতি দিলীপ ঘোষ। শুক্রবার সকালে চা চক্রে যোগ দিয়ে এমনটাই জানান তিনি।

এদিন সকালে দিলীপ বাবু বলেন, “নিউটাউনের ঘটনায় কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা দিয়ে তদন্ত করা প্রয়োজন। সরকার সন্ত্রাসবাদীদের আশ্রয় দিয়েছে। শুধু বিরোধীরাই নয়, বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রীও এই দাবি করেছেন।”

এরপরেই কেন্দ্রীয় এজেন্সিকে দিয়ে তদন্তের দাবি করেন তিনি। বলেন, “বারেবারেই এ রাজ্যকে নিরাপদ ঘাঁটি হিসেবে বেছে নিচ্ছে জঙ্গি বা গ্যাংস্টাররা। কেন  এ ধরনের ঘটনা ঘটছে, সে ব্যাপারে কোনও কেন্দ্রীয় এজেন্সিকে দিয়ে তদন্ত হওয়া দরকার।”

বুধবার দুপুরে দুই গ্যাংস্টার ও পুলিশের শুট আউটের হার হিম করা দৃশ্যের সাক্ষী থেকেছে নিউটাউন সাপুরজি এলাকা। গত কয়েকদিন ধরেই অভিজাত এই আবাসনেই গা ঢাকা দিয়েছিল ২ কুখ্যাত গ্যাংস্টার। কলকাতা পুলিশের স্পেশাল টাস্ক ফোর্সের সঙ্গে গুলির লড়াইয়ে নিহত হয় পাঞ্জাবের কুখ্যাত গ্যাংস্টার জয়পাল সিং বুল্লার ও জশপ্রীত জসসি। মূলত আগ্নেয়াস্ত্র ও চোরা চালানে মূল অভিযুক্ত ছিল তারা‌।বুধবার বিকেলে আচমকাই গুলির আওয়াজে কেঁপে ওঠে নিউটাউনের সাপুরজি সুখবৃষ্টি আবাসন। রাজ্য পুলিশের স্পেশাল টাস্কফোর্স এর অপারেশনে এনকাউন্টার হয়েছেন পাঞ্জাবের দুই গ্যাংস্টার জসসি খাড়ার এবং জয়পাল ভুললার এর।

সূত্রের খবর গত মাসের ২২ তারিখ থেকে সাপুরজি আবাসনের ওই ফ্ল্যাটে ভাড়া থাকতো দুষ্কৃতীরা। মে মাসের ১৫ তারিখ নাগাদ লুধিয়ানায় অস্ত্র ছিনতাই করে, দুই পুলিশ কর্মীকে খুন করে বাংলায় চলে আসে এই দুজন গ্যাংস্টার। তৎক্ষণাৎ খুনের ঘটনায় অভিযুক্ত জয়পাল এবং তাদের সাগরেদদের মাথার দাম ঘোষণা করা হয় হাজার ১৯ লাখ টাকা।

শুক্রবার সকালে পুলিশ তাদেরকে নিয়ে আরজিকর হাসপাতালে যাবে এবং সমস্ত প্রক্রিয়া শেষ করে মৃতদেহ তুলে দেওয়া হবে পরিবারের হাতে এমনটাই খবর পুলিশ সূত্রে। ছেলের দেহ নিতে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় কলকাতা বিমানবন্দরে পৌঁছান গ্যাংস্টার জয়পাল ভুল্লারের বাবা ভূপিন্দর সিং ভুল্লার। টেকনোসিটি থানায় পুলিশের সঙ্গে বেশ কিছু ক্ষন কথাও বলেন তিনি ।