সুপ্রিম কোর্টের দ্বারস্থ তৃণমূল নেত্রীর নির্বাচনী এজেন্ট! কিন্তু কেন?

সুপ্রিম কোর্টের দ্বারস্থ তৃণমূল নেত্রীর নির্বাচনী এজেন্ট! কিন্তু কেন?
সুপ্রিম কোর্টের দ্বারস্থ তৃণমূল নেত্রীর নির্বাচনী এজেন্ট! কিন্তু কেন?

বংনিউজ ২৪x৭ ডিজিটাল ডেস্কঃ নন্দীগ্রামে ভোটের আগে দেশের শীর্ষ আদালতের দ্বারস্থ হলেন তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নির্বাচনী এজেন্ট শেখ সুফিয়ান এবং আরও এক তৃণমূল নেতা আবু তাহের।

ভোটের আগে ফের পুরনো নন্দীগ্রাম মামলা খোলার অভিযোগ। তাই গ্রেফতারি এড়াতে হাইকোর্টের রায় খারিজ করার আবেদন জানিয়ে, শীর্ষ আদালতের দ্বারস্থ হয়েছেন এই দুই তৃণমূল নেতা৷ নন্দীগ্রামে তৃণমূলের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ নেতা শেখ সুফিয়ান এবং আবু তাহের। নন্দীগ্রাম আন্দোলনের সময় এঁরা ছাড়াও তৃণমূলের আরও অনেক নেতা-কর্মীর বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছিল পুলিশ। সেই শেখ সুফিয়ানই এবার নন্দীগ্রামে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নির্বাচনী এজেন্ট।

উল্লেখ্য, ২০০৭ সালে শেখ সুফিয়ানদের বিরুদ্ধে তৎকালীন বাম সরকারের পুলিশ এফআইআর দায়ের করেছিল। পরে তৃণমূল ক্ষমতায় এলে সেই এফআইআর প্রত্যাহার করে নেওয়া হয়। কিন্তু কয়েকদিন আগেই একটি জনস্বার্থ মামলায় করা আবেদনের ভিত্তিতে বাম আমলে করা ওই এফআইআর ফের পুনর্বহাল করার নির্দেশ দেয় কলকাতা হাইকোর্ট। এর জেরে নতুন করে ওয়ারেন্ট জারি করা হয় ওই এফআইআর-এ অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে৷

এদিন সুপ্রিম কোর্টে এই দুই তৃণমূল নেতা আবেদন করেছেন যে, ওয়ারেন্ট জারি হওয়ায়, এই মুহূর্তে তাঁরা নন্দীগ্রামে ঢুকতে পারছেন না৷ অথচ নন্দীগ্রামে তৃণমূলের প্রার্থী খোদ তাঁদের দলনেত্রী৷ এই অবস্থায় তাঁদের পক্ষে নির্বাচনী কাজকর্মে অংশগ্রহণ করাও সম্ভব হচ্ছে না৷ তাই কলকাতা হাইকোর্টের রায় খারিজ করার আবেদন নিয়েই দেশের শীর্ষ আদালতের দ্বারস্থ হন শেখ সুফিয়ান এবং আবু তাহের। তবে, এই দুই তৃণমূল নেতার আবেদন শোনার পর, প্রধান বিচারপতি শরদ অরবিন্দ বোবদে জানিয়েছেন যে, রাজনীতিতে এই ধরনের ঘটনা হতেই পারে। তবে, তাঁদের আবেদন হোলির ছুটির পর শোনা হবে।

এদিকে নন্দীগ্রামে ভোট দ্বিতীয় দফায়, অর্থাৎ আগামী ১ এপ্রিল। তাই হাতে আর খুব বেশি সময়ও নেই। শেখ সুফিয়ান এবং আবু তাহেরের আইনজীবী বিকাশ সিংহ এই বিষয়টিই বিচারপতিদের নজরে আনেন। তখন প্রধান বিচারপতি জানান যে, ছুটির মধ্যেই এই আবেদনের শুনানি হবে। সূত্রের খবর, সম্ভবত সোমবার এই মামলার শুনানি হতে পারে সুপ্রিম কোর্টে।

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন.