করোনাকে সঙ্গী করেই চলতে হবে! জানালেন ফিরহাদ

করোনাকে সঙ্গী করেই চলতে হবে! জানালেন ফিরহাদ
করোনাকে সঙ্গী করেই চলতে হবে! জানালেন ফিরহাদ

“করোনা নিয়েই চলতে হবে। অন্যান্য রোগকে যেমন সঙ্গী করে চলি, তেমনই চলতে হবে”। শনিবার এমনটাই জানিয়েছে কলকাতা পুরসভার মুখ্য প্রশাসক ফিরহাদ হাকিম। এদিকে কলকাতা পুরসভার যে তথ্য দিয়েছে তাতে দেখা গিয়েছে দ্বিতীয় ডোজ নিয়েছেন এমন আক্রান্তের সংখ্যা বেশি। তাই টিকার দুটি ডোজ নিলেও যে করোনা আক্রান্ত হবেন, এমন বিষয় পরিষ্কার হচ্ছে ক্রমেই।

উৎসবের মরশুম কাটতেই হু হু করে বাড়ছে করোনা সংক্রমণ। গত ২৪ঘন্টায় রাজ্যের প্রায় হাজারের কাছাকাছি দৈনিক পৌঁছেছে আক্রান্তের সংখ্যা। এদিকে কলকাতাতেও সংখ্যাটা নেহাত কম নয়। এর পরেই কলকাতা পুরসভার মুখ্য প্রশাসক ফিরহাদ হাকিম জানান, “করোনাকে নিয়েই চলতে হবে যে রকম পক্স বা অন্যান্য রোগকে সঙ্গে করে চলি সেই ভাবেই চলতে হবে”।

এদিন কলকাতা পুরসভার দেওয়া তথ্যে দেখা গিয়েছে, কলকাতা পুরসভা থেকে যে পরীক্ষা করার পর যে ৩১৮ জনের দেহে সংক্রমণ ধরা পড়েছে তাঁদের মধ্যে ১৯৪জনের টিকার দুটি ডোজ নেওয়াই হয়ে গিয়েছে। এই প্রসঙ্গে ফিরহাদ বলেন, “করোনা টিকার দুটি ডোজ নিলে আক্রান্ত হবেন না এমনতো কেউ বলেনি। তবে টিকা নেওয়া থাকলে মহামারীর আকার নেবে না। যে মৃত্যু মিছিল শুরু হয়েছিল তাকে রুখে দেওয়া সম্ভব হবে।”

পুজোর পর করোনা বাড়তে পারে এমন আশঙ্কা ছিলই। সে কথা স্বীকার করেছেন পুরসভার আধিকারিকরাও। তবে আক্রান্তের সংখ্যা ধীরে ধীরে কমে যাবে বলেই আশাবাদী ফিরহাদ হাকিম। তিনি জানান, “পুজোর জন্য যে শুধুমাত্র করোনা বাড়ছে তা নয়। অনেকের ঘুরতে গিয়েও করো না হচ্ছে। যদি একটু ভিড় এড়িয়ে দায়িত্ব নিয়ে সচেতন ভাবে মাস্ক পড়ে চলাফেরা করা যায় তাহলে এই বাড়বাড়ন্ত রাখা সম্ভব হবে। আমি আশাবাদী আক্রান্তের সংখ্যা ধীরে ধীরে কমে যাবে”।