ছেলেধরা সন্দেহে বৃহন্নলাদের গণপিটুনি বীরভূমে

নিজস্ব প্রতিবেদনঃ গণপিটুনি যেন কিছুতেই কমছে না। এবার ছেলেধরা সন্দেহে পাঁচ বৃহন্নলাকে বেধড়ক মারধরের অভিযোগ উঠলো বীরভূমে। এদের মধ্যে দুজন বৃহন্নলা এবং তিনজন পুরুষ। ঘটনাটি ঘটেছে বীরভূমের সিউড়ির হাটজন বাজার এলাকায়। স্থানীয় বাসিন্দাদের অভিযোগ, মিষ্টি খাইয়ে বাচ্চা চুরি করার চেষ্টা করছিলেন ওই পাঁচজন।

স্থানীয় সূত্রের খবর, একটি চারচাকা গাড়ি করে এসে একটি স্কুলের পাশে দাঁড়িয়ে ছোট ছেলেদের মিষ্টি খাওয়াচ্ছিল কয়েকজন। বাচ্চা চুরি করে পালানোর ফন্দি ছিল তাঁদের। এমনই অভিযোগ তুলে ওই পাঁচজনকে ঘিরে ধরে এলাকার মানুষ। লাঠি, বাঁশ হাতে নৃশংসভাবে পেটানো হয় তাঁদের। মারধরের পর তাঁদের টানতে টানতে নিয়ে যাওয়া হয় ফকিরপাড়া এলাকায়।

দীর্ঘক্ষন ধরে অত্যাচারে গুরুতর জখম হয়েছেন পাঁচজনই। তাঁদের স্থানীয় একটি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ভেতর আটকেও রাখা হয় দীর্ঘক্ষণ। ভাঙচুর করা হয়েছে তাঁদের গাড়িটিতে। ঘটনাস্থলে পুলিশ পৌঁছে তাদের উদ্ধার করে। আক্রান্তরা জানিয়েছেন, আদালতের একটি কাজে তাঁরা সিউড়ি এসেছিলেন।

আরও পড়ুনঃ  আমফানের জেরে বাংলার ফসলের ক্ষতির পরিমান রেকর্ড ছাড়িয়ে যাবে, আশঙ্কা রাজ্যের কৃষিমন্ত্রীর

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন.