নির্মম দৃশ্য মধ্যপ্রদেশে! মাস্ক না পরায় মহিলাকে মেয়ের সামনেই রাস্তায় ফেলে বেধড়ক মারধর-লাঞ্ছনা!

নির্মম দৃশ্য মধ্যপ্রদেশে! মাস্ক না পরায় মহিলাকে মেয়ের সামনেই রাস্তায় ফেলে বেধড়ক মারধর-লাঞ্ছনা!
নির্মম দৃশ্য মধ্যপ্রদেশে! মাস্ক না পরায় মহিলাকে মেয়ের সামনেই রাস্তায় ফেলে বেধড়ক মারধর-লাঞ্ছনা!

করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ের দাপটে কার্যত বিপর্যস্ত গোটা দেশ। পরিস্থিতির মোকাবিলায় বিভিন্ন কোভিড বিধি মেনে চলার নির্দেশ দিয়েছে সরকার। বিশেষ করে মাস্ক ব্যবহার বাধ্যতামূলক করা হয়েছে। মাস্ক ছাড়া রাস্তায় কাউকে দেখা গেলেই উপযুক্ত ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে। তবু সচেতনতার অভাবে মাস্ক পরতে অনীহা দেখাচ্ছেন বহু মানুষই। মাস্ক ছাড়াই পথেঘাটে ঘুরে বেড়াচ্ছেন তাঁরা। ফলে নিজের এবং আশেপাশের মানুষের জন্য ডেকে আনছেন বিপদ।

তবে সম্প্রতি এই মাস্ক পরাকে কেন্দ্র করেই এমন এক ঘটনা ঘটল যা দেখে বেশ আতঙ্কিতই হয়ে পড়েছেন নেটনাগরিকগণ। রাস্তায় বেরিয়ে কোভিড বিধি ভঙ্গ করেছেন এক মহিলা৷ কারণ মুখে মাস্ক না পরেই তিনি বেরিয়ে পড়েছেন। সেই অপরাধে রাস্তায় ফেলে মেয়ের সামনেই বেধড়ক মারধর করল পুলিশ। টেনে নিয়ে গিয়ে তোলা হচ্ছে পুলিশ ভ্যানে। কিল-চড়-ঘুষি-লাথি কিছুই বাদ নেই। মহিলাটি প্রতিবাদ করলেও মার থামাচ্ছে না পুলিশ। পাশে হতভম্ব হয়ে দাঁড়িয়ে মহিলাটির মেয়ে। মাকে এই অবস্থায় দেখা ছাড়া কার্যত কিছু করার উপায় নেই তার।

সম্প্রতি নির্মম এই ঘটনার সাক্ষী রইল মধ্যপ্রদেশ সাগর জেলা। এই ঘটনার একটি ভিডিও নেটদুনিয়ায় ভাইরাল হয়ে গিয়েছে। সেই ভিডিওতে স্পষ্ট দেখা যাচ্ছে, কী ভাবে মহিলাটির ওপর নৃশংস আচরণ করছে পুলিশ। মহিলা পুলিশের সঙ্গে কিছু পুরুষ পুলিশও মহিলাকে মাথার চুল ধরে টেনে-হিঁচড়ে নিয়ে যাচ্ছে। তোলার চেষ্টা করছে পুলিশ ভ্যানে। যন্ত্রণায় রীতিমতো চিৎকার করছেন মহিলাটি। তাঁর মেয়ে কয়েকবার তাঁকে সরানোর চেষ্টা করলেও লাভ হয়নি৷ বরং অত্যাচার বেড়েছে।

নির্মম এই ভিডিওটি দেখে রীতিমতো শিউড়ে উঠেছেন নেটিজেনরা। পুলিশটির বিরুদ্ধে ক্ষোভে ফেটে পড়েছেন তাঁরা৷ তীব্র সমালোচনাতেও বিঁধেছেন প্রত্যেকে। নেটিজেনদের একাংশ মনে করছেন, মাস্ক না পরা অবশ্যই অন্যায় এবং শাস্তিযোগ্য৷ কিন্তু মহিলাটির সঙ্গে যে আচরণ করা হয়েছে তা নৃশংস এবং অমানবিক। পাশাপাশি রাজ্যের পুলিশের ভূমিকা নিয়েও প্রশ্ন তুলেছেন তাঁরা। মুখ্যমন্ত্রীর উদ্দেশ্যেও পুলিশের আচরণবিধির ওপর কার্যত কড়া নজর দেওয়ার অনুরোধও করেছেন।