টিকাকরণ নিয়ে বড় ঘোষণা মুখ্যমন্ত্রীর! কী প্রতিশ্রুতি দিলেন মমতা?

টিকাকরণ নিয়ে বড় ঘোষণা মুখ্যমন্ত্রীর! কী প্রতিশ্রুতি দিলেন মমতা?
টিকাকরণ নিয়ে বড় ঘোষণা মুখ্যমন্ত্রীর! কী প্রতিশ্রুতি দিলেন মমতা?

বংনিউজ২৪x৭ ডিজিটাল ডেস্কঃ ভোটের আবহে বাংলায় ঝড়ের গতিতে ছড়াচ্ছে মারণ করোনা। বাড়ছে মৃত্যুর সংখ্যাও। বাংলায় সংক্রমণের নিরিখে প্রথম স্থানে রয়েছে কলকাতা।

এই পরিস্থিতিতে বাংলার সব প্রাপ্তবয়স্কদের বিনামূল্যে করোনা টিকা দেবে রাজ্য সরকার। এমনটাই ঘোষণা করলেন বাংলার মুখ্যমন্ত্রী তথা তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। পাশাপাশি করোনা টিকার দাম নিয়ে কেন্দ্রের বিরুদ্ধে ইতিমধ্যেই সুর চড়িয়েছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি জাতি-ধর্ম-বয়স নির্বিশেষে সবাইকে একই দামে টিকা দেওয়ার দাবিও তোলেন।

উল্লেখ্য, কেন্দ্রীয় সরকার গণটিকাকরণের সিদ্ধান্ত ঘোষণার পর প্রধানমন্ত্রীকে মঙ্গলবার কড়া ভাষায় চিঠি লিখলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। প্রধানমন্ত্রীকে চিঠি লিখে কেন্দ্রের করোনা নীতিকে আক্রমণ করেছিলেন মমতা। চিঠিতে তিনি আরও অভিযোগ করেছিলেন যে, ১৮ বছরের ঊর্ধ্বে ভ্যাকসিন দেওয়ার সিদ্ধান্ত অনেক দেরিতে নেওয়া হয়েছে। নেত্রীর অভিযোগ, ‘পরিস্থিতি বুঝে এখন গা বাঁচানোর চেষ্টা করছে কেন্দ্র’। পাশাপাশি তৃণমূল নেত্রী মোদির কাছে ‘স্বচ্ছ, বিশ্বাসযোগ্য টিকাকরণ নীতি’ সুনিশ্চিত করার দাবি জানিয়েছেন।

আবার অন্যদিকে, করোনা ভ্যাকসিন কোভিশিল্ড প্রস্তুতকারক সংস্থা সিরাম ইনস্টিটিউটের ভ্যাকসিন নিয়ে বিজ্ঞপ্তি জারির পরও সমালোচনায় মুখর হন মুখ্যমন্ত্রী। কারণ সংস্থার বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছিল যে, সমস্ত রাজ্য সরকারকে কোভিশিল্ডের প্রতি ডোজের জন্য দিতে হবে ৪০০ টাকা করে। অর্থাৎ দুটি ডোজের জন্য লাগবে ৮০০ টাকা। পাশাপাশি বেসরকারি হাসপাতালগুলির ক্ষেত্রে কোভিশিল্ডের প্রতি ডোজের দাম নির্ধারণ করা হয়েছে ৬০০ টাকা করে। তবে, কেন্দ্র এখনও ১৫০ টাকাতেই প্রতিটি ডোজ পাবে। এই বিজ্ঞপ্তি নিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। কেন্দ্রের বিরুদ্ধে টিকা নিয়ে বৈষম্যের অভিযোগ করেন।

ভ্যাকসিনের দাম নিয়ে এই বৈষম্যের কারণে বেজায় ক্ষুব্ধ বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। কেন্দ্রীয় সরকার যে দামে ভ্যাকসিন কিনছে, তার থেকে কেন বেশি দামে রাজ্যকে বা বেসরকারি হাসপাতালকে ভ্যাকসিন কিনতে হবে? সেই প্রশ্নই তুললেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এই সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে কড়া চিঠি দেবেন বলেও বুধবার জানিয়েছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এদিন মালদহে রাজ্যের সার্বিক করোনা পরিস্থিতি নিয়ে সাংবাদিক বৈঠক করেন মুখ্যমন্ত্রী। সেখানেই তিনি এ প্রসঙ্গে কথা বলেন।

দেশের করোনা পরিস্থিতির জন্য কেন্দ্র এবং প্রধানমন্ত্রীকে দায়ী করেন। বলেন, ‘ম্যন মেড নয়, এটা মোদি মেড ডিজাস্টার। কেন্দ্র যদি ৬ মাস আগে থেকে রাজ্যগুলোকে টিকা দিত, তাহলে আর কারও করোনা হত না। আমি নরেন্দ্র মোদীকে বলেছিলাম, আমাকে ভ্যাকসিন দিন, রাজ্য কিনে নিয়ে আমি বিনা পয়সায় সবাইকে দেব। আর এখন বলছে ভ্যাকসিন নিজেরা জোগাড় করে নিন। কোথা থেকে পাব ভ্যাকসিন? আগেই তো সব টিকা বিদেশে পাঠিয়ে দেয়েছেন? এই করোনা পরিস্থিতির জন্য মোদিই দায়ী।’