বাঙালি স্টাইলে মশলাদার ঘুগনির রেসিপি দেখে নিন

বাঙালি স্টাইলে মশলাদার ঘুগনির রেসিপি দেখে নিন
বাঙালি স্টাইলে মশলাদার ঘুগনির রেসিপি দেখে নিন

সকালের জলখাবারে মুড়ি, লুচি বা শুধুই ঘুগনি হলে আলাদাই মজা। আর এইভাবে মশলাদার ঘুগনি বানালে তার স্বাদ যেন ভোলা মুশকিল। আসুন দেখে নেওয়া যাক সেই রেসিপিটি-

প্রয়োজনীয় উপকরণ: মটর কড়াই ১৫০ গ্ৰাম, পিঁয়াজ ১ টা, আদা ১ টুকরো, রসুন ৪টি একসঙ্গে বাটা, হলুদ, জিরে, ধনে গুঁড়া ১ চামচ করে, সর্ষের তেল ৫ চামচ, চিনি অল্পকরে, গরম মসলা ১ চামচ, তেজপাতা ২টি, কাঁচা লঙ্কা ৪টি গোটা, টম্যাটো কুচি অর্ধেক টা,নুন স্বাদ মতো‌, ভাজা জিরে গুঁড়ো অল্প, একটা আলু কুচানো নিয়ে নেবেন।

বানানোর পদ্ধতি: ঘুগনি করার আগের দিন রাতে জলে মটর কড়াই অবশ্যই ভিজিয়ে রাখবেন। নাহলে সেগুলি সিদ্ধ হবেনা। পরদিন সকাল বেলাতে ২ গ্লাস জল দিয়ে একটা ছোট ছোট টুকরো করা আলু দিয়ে সে টি কুকারে ২ টো সিটি কিছুক্ষন বসিয়ে রেখে দিন।

এরপর কড়াই বসিয়ে কড়াইতে তেল দিন তেল গরম হলে তাতে তেজপাতা ফোড়ন দিয়ে পিঁয়াজ কুচি দিয়ে ভাজুন পিঁয়াজ ভাজা হলে তাতে রসুন বাটা, আদাবাটা দিয়ে একটুখানি নাড়াচাড়া করে তাতে হলুদ, জিরে, ধনে গুঁড়া দিয়ে নাড়াচাড়া করে গরম মসলা গুঁড়া, টম্যাটো কুচি দিয়ে, অল্প চিনি দিয়ে অল্প জল দিয়ে চাপা দিয়ে কম আঁচে মসলাটা ভালোভাবে কষুন, যাতে মশলার ওঠে সুন্দর।

হলে এক মিনিট পরে খুলে দেখবেন খুব সুন্দর রং চলে এসেছে। এবার কুকার থেকে মটর কড়াই বার করে কড়াই তে ঢালুন সাথে নুন স্বাদ মতো‌ ও কাঁচা লঙ্কা চেরা দিয়ে চাপা দিয়ে মিনিট খানেক রাখুন। নিজের প্রয়োজন মত করে জল দিন যদি ঘুগনি ঘন হয়ে যায় তখন উপর থেকে ভাজা জিরে গুঁড়া ছড়িয়ে দিন। পরিবেশনের আগে ভাজা মসলা গুঁড়ো সাথে পেঁয়াজ কুচি, ঝুড়ি ভাজা ছড়িয়ে দিতে পারেন পছন্দসই ভাবে।