করোনায় সংক্রমণ আর মৃত্যু নিয়ে আবারো মুখ্যমন্ত্রীকে খোঁচা দিয়ে রাজ্যপাল ধনখড় বললেন…

করোনায় সংক্রমণ আর মৃত্যু নিয়ে আবারো মুখ্যমন্ত্রীকে খোঁচা দিয়ে রাজ্যপাল ধনখড় বললেন…

কয়েকদিন আগেই দেশ থেকে তুলে দেওয়া হয়েছে লকডাউন। কেন্দ্রীয় সরকারের তরফে জানানো হয়েছিল যে ধীরে ধীরে বিভিন্ন পর্যায়ে লকডাউন একটু একটু করে তোলা হবে। সেই মতো এই মুহূর্তে চলছে লকডাউন ১.০। কিন্তু লকডাউন ওঠার পর থেকেই উদ্বেগজনকভাবে বেড়ে চলেছে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত এবং মৃতের সংখ্যা। গত ৩১ মে থেকে ৬ জুন পর্যন্ত রাজ্যে করোনা পরিস্থিতি চোখে আঙুল দিয়ে দেখিয়ে দিয়েছে। ৩১ মে করোনায় মোট আক্রান্তের সংখ্যা ছিল ৫ হাজার ৫০১ জন, এর মধ্যে মৃত্যু হয়েছিল ২৫৩ জনের। ৭ জুন আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৭ হাজার ৭৩৮ জন। মৃত্যু হয়েছে ৩২৮ জনের।

নিজেদের সুরক্ষার খাতিরে সকলেই প্রায় মেনে চলছেন সরকারী নির্দেশ। কিন্তু তাও যেভাবে আক্রান্ত এবং মৃত্যুর হার বেড়ে চলেছে তা চিন্তা বাড়িয়েছে সকলের। এর মধ্যে পশ্চিমবঙ্গের রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড় রাজ্যের করোনার পরিস্থিতি নিয়ে মুখ্যমন্ত্রীকে নিশানা করে একটি টুইট করেন। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে কটাক্ষ করে রাজ্যপাল নিজের টুইটার হ্যান্ডেলে লেখেন, “রাজনীতি না করে এখন জনস্বার্থে কড়া পদক্ষেপ নিন”। যা নিয়েই শুরু হয়েছে বিতর্ক।

অন্যদিকে স্বাস্থ্য দপ্তর থেকে পাওয়া তথ্যের ভিত্তিতে জানা গিয়েছে যে পয়লা জুন থেকে রাজ্যে প্রতিদিনই নতুন করে সংক্রমিত হয়েছেন প্রায় ৪০০ জন করে। ৬ জুন এই সংখ্যা ছাড়িয়ে গিয়েছে ৪০০কেও। সংক্রমণের পাশাপাশি পাল্লা দিয়ে বাড়ছে মৃত্যুর হারও। তবে রাজ্যপাল শুধু মুখ্যমন্ত্রীকে কটাক্ষ করেই ক্ষান্ত হননি, তোপ দেগেছেন তৃণমূল সাংসদ ডেরেক ও’ব্রায়েনের উপরও। ব্রায়েনকে কটাক্ষ করে রাজ্যপাল বলেন, “নমুনা পরীক্ষার বহু রিপোর্ট এখনও অপ্রকাশিত। এতে সংক্রমণের আশঙা বাড়ছে। এটাই কী তবে স্বচ্ছতার উদাহরণ”! রাজ্যপালকে পাল্টা আক্রমণ করেছেন ডেরেক ও’ব্রায়েনও। রিটুইট করে ডেরেকে বলেন “আপনি হয়ত সেগুলো আগে দেখেননি। বাংলায় কোভিড আক্রান্ত নিয়ে ১২ পেজের ডেইলি আপডেট”।

আরও পড়ুনঃ  বিনয়ী কেষ্ট, হাতজোড় করে চাইলেন অন্যের ভুলের জন্য ক্ষমা ও ভোট

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন.