১ কোটি টাকার এই প্রশ্নের উত্তর দিয়েই বাজিমাৎ! কেবিসিতে কোটিপতি হলেন দৃষ্টিহীন এই মহিলা

১ কোটি টাকার এই প্রশ্নের উত্তর দিয়েই বাজিমাৎ! কেবিসিতে কোটিপতি হলেন দৃষ্টিহীন এই মহিলা
১ কোটি টাকার এই প্রশ্নের উত্তর দিয়েই বাজিমাৎ! কেবিসিতে কোটিপতি হলেন দৃষ্টিহীন এই মহিলা

দীর্ঘ এক বছর পর টেলিভিশনের পর্দায় ফের ফিরে এসেছে ‘কৌন বনেগা ক্রোড়পতি’। গত সপ্তাহ থেকেই শুরু হয়েছে ‘কেবিসি’র নতুন ১৩ নম্বর সিজন। আর শুরু হওয়ার দিন থেকেই মোটা অঙ্কের টাকা জিতে নিতে দেখা গিয়েছে প্রতিযোগীদের। এবার সপ্তাহ ঘুরতেই শো’এর প্রথম কোটিপতির দেখাও মিলল। সঞ্চালক অমিতাভ বচ্চনের প্রশ্নের সঠিক উত্তর দিয়ে কোটি টাকা জিতে নিলেন দৃষ্টিহীন এক প্রতিযোগী, হিমানী বুন্দেলা।

‘কৌন বনেগা ক্রোড়পতি সিজন ১৩’র প্রথম দৃষ্টিহীন প্রতিযোগী ২৫ বছর বয়সি হিমানী। ২০১১ সালের একটি দুর্ঘটনা কেড়ে নিয়েছিল তাঁর দৃষ্টিশক্তি। সেসময় পরিবারের সদস্যরা মানসিকভাবে ভেঙে পড়লেও হিমানী কিন্তু নিজের জেদ ছাড়েননি। মনের জোরকে সম্বল করেই চালিয়ে গিয়েছিলেন পড়াশোনা। আজ তিনি একটি কেন্দ্রীয় বিদ্যালয়ের শিক্ষিকা। সেখানে ছোট ছোট দৃষ্টিহীন শিশুদের অঙ্ক শেখানোর পাশাপাশি তাদের জীবনে সফল হওয়ার পাঠও দিয়ে থাকেন হিমানী। বিশেষভাবে সক্ষম শিশুদের উদ্দেশ্যে সচেতনতার বার্তা দিতেও দেখা যায় তাঁকে।

সেই হিমানীই এবার হাজির হয়েছিলেন কেবিসির মঞ্চে৷ তা এসেই তিনি চমক লাগিয়ে দিয়েছেন সঞ্চালক অমিতাভ বচ্চন সহ দর্শকদেরও। একের পর একের সঠিক উত্তর দিয়ে কোটি টাকার প্রশ্নে পৌঁছে যান তিনি। তারপরই দর্শকরা উৎসুক হয়ে ওঠেন আদৌ কি শেষ প্রশ্নের ফাঁড়া কাটিয়ে কোটি টাকা হাতে পাবেন হিমানী? এই এক কোটি টাকার শেষ প্রশ্নটি ছিল, দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধ চলাকালীন ফ্রান্সে ব্রিটেনের গুপ্তচার হিসেবে কাজ করার সময় নূর এনায়েত খান কোন ছদ্মনাম নিয়েছিলেন? ১. ভেরা এটকিন্স ২. ক্রিস্টিনা স্কারবেক ৩. জুলিয়েন আইস্নর ৪. জিন-মেরি রেনিয়র। আর প্রশ্নটির উত্তর, জিন-মেরি রেনিয়র। যা সঠিকভাবে জবাব দিয়ে কোটিপতি হয়ে গেলেন হিমানী।

১ কোটি টাকার এই প্রশ্নের উত্তর দিয়েই বাজিমাৎ! কেবিসিতে কোটিপতি হলেন দৃষ্টিহীন এই মহিলা
১ কোটি টাকার এই প্রশ্নের উত্তর দিয়েই বাজিমাৎ! কেবিসিতে কোটিপতি হলেন দৃষ্টিহীন এই মহিলা

প্রশ্নের জবাব দেওয়ার পর বিষ্ময়ে হতবাক অমিতাভ বচ্চন যখন জিজ্ঞেস করেন কীভাবে সঠিক উত্তর দিলেন তিনি? তখন হিমানী জানান এটি তিনি স্কুলে পড়েছিলেন। সেটাই তাঁর স্মরণে ছিল। হিমানীর এই মেধা দেখে ক্যামেরার সামনেই তাঁর ভূয়সী প্রশংসায় মাতেন বিগ বি। এরপর নিজে হিমানীর হাতে তুলে দেন কোটি টাকার চেক। কেবিসিতে এসে বাজিমাৎ করে কোটি টাকা জেতার জন্য হিমানী নিজেও যে খুবই আপ্লুত তা বলাই বাহুল্য। আনন্দ ও আবেগে ভেসে গিয়েছেন তিনি।