বৃহস্পতিবার, ০৭ জুলাই, ২০২২

উদ্বোধনের পরই হুড়মুড়িয়ে ভেঙে পড়ল ব্রিজ! খাদে পড়ে আক্রান্ত মেয়র সহ একাধিক

চৈত্রী আদক

প্রকাশিত: জুন ১০, ২০২২, ১২:৪০ পিএম | আপডেট: জুন ১০, ২০২২, ১২:৪০ পিএম

উদ্বোধনের পরই হুড়মুড়িয়ে ভেঙে পড়ল ব্রিজ! খাদে পড়ে আক্রান্ত মেয়র সহ একাধিক
উদ্বোধনের পরই হুড়মুড়িয়ে ভেঙে পড়ল ব্রিজ! খাদে পড়ে আক্রান্ত মেয়র সহ একাধিক

বংনিউজ২৪×৭ ডিজিটাল ডেস্কঃ সবে উদ্বোধন হয়েছিল ফুট ব্রিজটির। তার কিছুক্ষণের মধ্যেই হুড়মুড়িয়ে ভেঙে পড়ল নবনির্মিত ব্রিজ। ১০ ফুট উঁচু সেতু থেকে ২০ জনেরও বেশি মানুষ ব্রিজের নিচে একটি খাদে পড়ে যান। আহত হন একাধিক। এদের মধ্যে ৮ জন গুরুতরভাবে আহত। তাদের প্রত্যেককেই স্থানীয় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। হাসপাতাল সূত্রে জানা গিয়েছে, ৮ জনের প্রত্যেকেরই পায়ের হাড় ভেঙেছে।

রাজ্য হোক বা দেশ, ব্রিজ ভেঙে পড়ার একাধিক দৃষ্টান্ত রয়েছে। এবার বিদেশেও দেখা গেল সেই দৃশ্য। স্থানীয় সংবাদমাধ্যম সূত্রে খবর, মেক্সিকোর কিউয়েরনাভাকা শহরে ঘটনাটি ঘটে। জানা গিয়েছে, সেতুটি উদ্বোধনের অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন শহরের মেয়র হোসে লুইস উরিওস্তেগুই। উদ্বোধনের কিছুক্ষণের মধ্যেই ব্রিজ খুলে দেওয়া হয় ব্যবহারের জন্য। সস্ত্রীক মেয়র সহ ২০ জন ওই ব্রিজে ওঠেন। সেতু দিয়ে পারাপার করতে গিয়েই ঘটে বিপত্তি।

রীতিমতো হুড়মুড় করে ভেঙে পড়ে নবনির্মিত সেতুটি। ব্রিজের ওপরে থাকা প্রত্যেকেই সেতুর নিচে একটি খাদে পড়ে যান। রুক্ষ পাথর এবং বোল্ডারের ওপর পড়ে প্রত্যেকেই কম-বেশি আহত। আহতদের তালিকায় রয়েছেন বেশ কয়েকজন সাংবাদিকও। এদের মধ্যে ৮ জন গুরুতরভাবে আহত হন। তারা প্রত্যেকেই হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। নবনির্মিত ব্রিজ ভেঙে পড়ায় প্রত্যেকের মনেই আতঙ্কের সঞ্চার হয়েছে।

ইতিমধ্যেই সেতু ভেঙে পড়ার একটি ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে। এই দৃশ্য দেখে রীতিমতো চমকে উঠেছেন নেটিজেনরা। জানা গিয়েছে, ওই অঞ্চলে পুরনো একটি সেতু ছিল। সম্প্রতি কাঠের বোর্ড এবং ধাতব চেন দিয়ে সেই সেতুটিই নতুন করে নির্মাণ করা হয়। নির্মাণের পরই এত কম সময়ের মধ্যে ঠিক কী কারণে ব্রিজটি ভেঙে পড়ল তা এখনও জানা যায়নি। এই ঘটনার জেরে স্বাভাবিকভাবেই সেতুর গুণমান নিয়ে প্রশ্ন উঠছে।

এই প্রসঙ্গে মুখ খুলেছেন হোসে লুইস উরিওস্তেগুই। স্থানীয় সংবাদ মাধ্যমের প্রতিবেদন অনুযায়ী তিনি বলেছেন, কয়েকদিন হল সেতুটি নতুন করে নির্মিত হয়। উদ্বোধনের আগে সেতুটিতে কিছু লোক অবস্থান করছিলেন। এরপর কর্মকর্তা, সাংবাদিক সহ অতিরিক্ত ব্যক্তির উপস্থিতি সম্ভবত সেতুর ধারণ ক্ষমতাকে ছাড়িয়ে যায়। সেই কারণেই ব্রিজটি ভেঙে পড়ে। নবনির্মিত ব্রিজ কেন ভেঙে পড়ল তা খতিয়ে দেখতে শুরু হয়েছে তদন্ত। বেশ কয়েকজন আহত হলেও কারুর মৃত্যুর খবর মেলেনি।