সপ্তাহের এই দুইদিন পুরীর জগন্নাথ মন্দির বন্ধ থাকবে! ২৪ এপ্রিল থেকে নয়া নিয়ম, রইল বিস্তারিত

সপ্তাহের এই দুইদিন পুরীর জগন্নাথ মন্দির বন্ধ থাকবে! ২৪ এপ্রিল থেকে নয়া নিয়ম, রইল বিস্তারিত
সপ্তাহের এই দুইদিন পুরীর জগন্নাথ মন্দির বন্ধ থাকবে! ২৪ এপ্রিল থেকে নয়া নিয়ম, রইল বিস্তারিত

বংনিউজ২৪x৭ ডিজিটাল ডেস্কঃ দেশব্যাপী ঝড়ের গতিতে বাড়ছে করোনা সংক্রমণ। প্রতিদিন দৈনিক আক্রান্তের সংখ্যা নতুন রেকর্ড সৃষ্টি হচ্ছে। প্রতিদিন ভয়ঙ্কর দুঃস্বপ্নের মতো তাড়া করে বেড়াচ্ছে মারণ করোনা। এই মুহূর্তে দেশজুড়ে যা করোনা পরিস্থিতি, তাতে ভয়ঙ্কর, উদ্বেগজনক ইত্যাদি কোনও বিশেষণই যথেষ্ট নয়।

এই পরিস্থিতিতে সপ্তাহের শেষে পুরীর জগন্নাথ মন্দির বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে মন্দির কর্তৃপক্ষ। এর পাশাপাশি চলতি মাসের ২৪ তারিখ থেকে নয়া নিয়ম কার্যকর হতে চলেছে। এই নতুন নিয়ম অনুযায়ী, সোম থেকে শুক্রবার অবধি খোলা থাকবে জগন্নাথ মন্দির। মন্দির বন্ধ থাকবে শনি ও রবিবার।

জানা গিয়েছে, বর্তমান করোনা পরিস্থিতি বিবেচনা করে, পুরীর মন্দির খোলা রাখা নিয়ে, শুক্রবার মন্দির কর্তৃপক্ষের সঙ্গে জেলাশাসক ও অন্যান্য আধিকারিকদের ভার্চুয়াল বৈঠক হয়। সেই বৈঠকেই এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

এ প্রসঙ্গে মন্দির কর্তৃপক্ষের তরফে গৌরহরি প্রধান জানিয়েছেন যে, ২৪ এপ্রিল থেকে নয়া নিয়ম কার্যকর করা হবে। মন্দিরের ভিতরে মাস্ক ছাড়া প্রবেশ করা নিষেধ। কেউ মাস্ক ছাড়া থাকলে, জরিমানা করা হবে। এছাড়া অতিরিক্ত জমায়েতের ভয়ে মন্দিরের ভিতরে একসঙ্গে বেশি ভক্তকে ঢুকতে দেওয়া হবে না। প্রয়োজনে সাধারণ মানুষের জন্য দূর থেকে জগন্নাথ দর্শনের ব্যবস্থা করা হবে। এও সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে যে, ওডিশার বাইরের রাজ্যের ভক্তদের মন্দিরে ঢুকতে হলে, কোভিড নেগেটিভ রিপোর্ট সঙ্গে থাকতে হবে। তা না হলে, টিকার দুটি ডোজ নেওয়ার শংসাপত্র থাকলেই মন্দিরে প্রবেশ করা যাবে।

অন্যদিকে, জানা গিয়েছে যে, পুরীর মন্দিরের বাইরে র‍্যাপিড অ্যান্টিজেন টেস্টের ব্যবস্থাও করা হবে। তবে, পুরীর দর্শনার্থীদের জন্য এখনও এরকম কোনও বিধিনিষেধ চালু হয়নি। মন্দিরের ভিতরে দর্শনার্থীরা করোনা সংক্রান্ত বিধিনিষেধ ঠিকঠাক মানছেন কিনা, তা দেখার জন্য সাত সদস্যের একটি কমিটিও গঠন করা হয়েছে।

অন্যদিকে, শুক্রবারের ভার্চুয়াল বৈঠকে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে যে, করোনা পরিস্থিতি আরও খারাপ হলে, প্রয়োজনে মন্দিরে ভক্তদের প্রবেশে সম্পূর্ণরূপে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হতে পারে।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, গত দু’দিন দৈনিক করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ফের একবার দু’ লক্ষের গণ্ডি ছাড়িয়েছে। এই আবহে আজই টুইটারে ‘প্রতীকী কুম্ভমেলা’ পালনের আবেদন জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। এই অবস্থায় করোনা পরিস্থিতি আরও খারাপ হওয়ার আগেই সংক্রমণ রুখতে বড় পদক্ষেপ নিল পুরীর জগন্নাথ মন্দির কর্তৃপক্ষ।

উল্লেখ্য, এপ্রিলেই ফের একবার করোনার ঢেউ আছড়ে পড়েছে পুরীর জগন্নাথ মন্দিরে। মন্দিরের বহু সেবায়েতের করোনা সংক্রমিত হওয়ার খবর প্রকাশ্যে আসা শুরু হয়। সেই জন্যই সংক্রমণ ঠেকাতেই, সপ্তাহান্তে মন্দির বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে কর্তৃপক্ষ। সেই সুযোগে শনিবার ও রবিবার যখন মন্দির বন্ধ থাকবে, তখন মন্দির চত্বরটি স্যানিটাইজ করা হবে বলেও সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন.