বিধায়ক হলেই বৃদ্ধদের জন্য করবেন এক অভিনব ব্যবস্থা, ঘোষণা জিতেন্দ্র তিওয়ারির

বিধায়ক হলেই বৃদ্ধদের জন্য করবেন এক অভিনব ব্যবস্থা, ঘোষণা জিতেন্দ্র তিওয়ারির
বিধায়ক হলেই বৃদ্ধদের জন্য করবেন এক অভিনব ব্যবস্থা, ঘোষণা জিতেন্দ্র তিওয়ারির/Image Source- Screengrab from Video Tweeted By @JitendraAsansol

তার দলবদল নিয়ে দ্বন্দ্ব তৈরি হলেও শেষ পর্যন্ত বিজেপিতে যোগদান করেছেন জিতেন্দ্র তিওয়ারি। গেরুয়া শিবিরে যোগদান করে পেয়েছেন বিধানসভা নির্বাচনের টিকিট। এবারের যদি তিনি নির্বাচনে জিতে যান তাহলে পাণ্ডবেশ্বর এর সমস্ত প্রবীনদের অযোধ্যায় নিয়ে যাবেন। রবিবার এমনটাই আশ্বাস দিলেন সদ্য তৃণমূল ত্যাগী এই বিজেপি প্রার্থী।

জিতেন্দ্র তিওয়ারি এ দিন প্রচারে বেরিয়ে জানান, এবারে একুশের বিধানসভা ভোটে যদি তিনি বিধায়ক হতে পারেন তাহলে নিজস্ব উদ্যোগে বিনা খরচে এলাকার যে সমস্ত প্রবীণরা অযোধ্যা রাম মন্দির এ যেতে চান তাদেরকে সেখানে তিনি নিয়ে যাবেন। এদিন পান্ডবের শরীর হরিপুর রাম মন্দিরে পুজো দিয়ে প্রচার শুরু করেন জিতেন্দ্র বাবু।

এদিন এক ফেসবুক ভিডিও করে জিতেন্দ্র তিওয়ারি জানান, “আপনারা জানেন আমি বিগত পাঁচ বছর ধরে পাণ্ডবেশ্বর এর বিধায়ক ছিলাম। কিন্তু তৃণমূল আমাকে অন্য জায়গা থেকে দাঁড়াতে বলেছিল। আমি সরে এসে বিজেপি পার্টি যোগদান করি। তারা আমাকে পাণ্ডবেশ্বর এর মানুষের সঙ্গে থাকার আরেকটা সুযোগ করে দিয়েছে তার জন্য আমি তাদের কৃতজ্ঞতা জানাই।”

এরপরেই তিনি জানান, “বিজেপিতে যোগদান করার পরেই আমি দেখছি বিভিন্ন সোশ্যাল মিডিয়ায় আমার নামে তৃণমূল কর্মী সমর্থকদের দিয়ে কুৎসা রটানোর চেষ্টা করা হচ্ছে। আমার ব্যক্তিগত জীবন নিয়ে অনেক রকম কুরুচিকর মন্তব্য করা হচ্ছে।”

এরপরে তিনি অভিযোগ করেন পাণ্ডবেশ্বর এর যে তৃণমূল প্রার্থী হয়েছেন তিনি জিতেন্দ্র তিওয়ারি কে সাজানোর পাশাপাশি এলাকার বাসিন্দারা যাঁরা অযোধ্যা রাম মন্দিরে দর্শনে যাবেন তাদের হাত-পা মেরে ভেঙে দেবেন বলে হুঁশিয়ারি দিয়েছেন। এ প্রসঙ্গেই জিতেন্দ্র বাবু জানিয়েছেন, ক্ষমতায় এলে পাণ্ডবেশ্বর এর মানুষ দের বিশেষ করে প্রবীনদের যাঁরা রামলালার দর্শন করতে চাইবেন তাদের নিজের উদ্যোগে তিনি সেখানে নিয়ে যাবেন।

রাজনৈতিক মহলের মত রাম মন্দির দর্শন করানোর কথা বলে এক প্রকার শাসক দলকে হুঁশিয়ারি দিয়েছেন তিনি।

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন.