বাসের সঙ্গে ভয়াবহ সংঘর্ষ এড়ালেন স্কুটার চালক! ভিডিও দেখলে শিউরে উঠতে বাধ্য

বাসের সঙ্গে ভয়াবহ সংঘর্ষ এড়ালেন স্কুটার চালক! ভিডিও দেখলে শিউরে উঠতে বাধ্য
বাসের সঙ্গে ভয়াবহ সংঘর্ষ এড়ালেন স্কুটার চালক! ভিডিও দেখলে শিউরে উঠতে বাধ্য

বেপরোয়া ভাবে গাড়ি চালানোয় মারাত্মক পথ দুর্ঘটনার মুখে পড়তে চলেছিলেন যুবক। ভাগ্যের জোরেই সাক্ষাৎ মৃত্যুর মুখ থেকে ফিরে এলেন তিনি। ঘটনাটি ঘটেছে কর্ণাটকে। আর ঘটনার ভিডিও ইতিমধ্যেই ভাইরাল হয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। যেভাবে মর্মান্তিক পরিণতির হাত থেকে রক্ষা পেয়েছে যুবকটি, তা দেখে শিউরে উঠেছেন নেটিজেনরা।

ঘটনাটি কী ঘটেছিল? ভিডিওতে দেখা গিয়েছে, রাস্তায় ইউ টার্ন নেওয়ার চেষ্টা করছিলেন একটি বাসের চালক। রাস্তা সেসময় মোটামুটি ফাঁকাই ছিল। কিন্তু চালক যেই না বাস নিয়ে ইউ টার্ন নিতে যাবেন, ঠিক তখনই পিছন থেকে তীব্র গতিতে ছুটে আসে এক একটি স্কুটার। এদিকে বাসটিও ততক্ষণে ইউ টার্ন নেওয়ার জন্য প্রস্তুত হয়ে গিয়েছে। তবে আচমকা তীব্র গতিতে স্কুটারটিকে ধেয়ে আসতে দেখে কোনওমতে ব্রেক কষেন বাস চালক। আর ঠিক তখনই বাসের বাস দিয়ে বেরিয়ে যায় স্কুটারটি।

শুধু তাই নয়! বাসের সঙ্গে কোনও ক্রমে সংঘর্ষ এড়ালেও বেসামাল হয়ে যান স্কুটার চালকটি। ফলে এগিয়ে গিয়ে সামনে থাকা একটি fish processing unit-এর গেটে গিয়ে ধাক্কা মারেন। তারপর টাল সামলে একটা গাছ এবং ওই দোকানের মাঝের জায়গা দিয়ে স্কুটার চালিয়ে বেরিয়ে যান। জানা গিয়েছে, এমন ভয়াবহ ঘটনাটি ঘটেছে ম্যাঙ্গালোরের কাছে Elyarpadavu এলাকায়। রাস্তার পাশে থাকা সিসিটিভি ক্যামেরায় ধরা পড়ে গোটা বিষয়টি। পরে তা ছড়িয়ে পড়তেই ভাইরাল হয়ে ওঠে।

এদিকে এই ভিডিও দেখে ইতিমধ্যেই আতঙ্কে শিউরে উঠেছেন নেটিজেনরা। যদি কোনও কারণে ওই চালক ব্রেক কষে বাসটি না থামাতে পারতেন, তাহলে মারাত্মক দুর্ঘটনা ঘটে যেতে পারত। ফলে যুবকটি যে বরাতজোরে রক্ষা পেয়েছে এ কথা বলাই বাহুল্য। অনেকেই স্কুটার চালকের তীব্র গতিতে গাড়ি চালানোর সমালোচনা করেছেন। তবে অনেকেই আবার এও বলেছেন, বাস চালকের মোটেই ওভাবে মাঝরাস্তায় ইউ টার্ন নেওয়া উচিত হয়নি। কারণ রাস্তায় চলা আর কারোর পক্ষেই তা আগাম টের পাওয়া সম্ভব নয়৷ বেশ কিছুজনের আবার দাবি, বাস এবং স্কুটার, দুই চালকেরই এখানে সমান দোষ ছিল।