চোখ রাঙাচ্ছে করোনা! এবার মেট্রো চড়তে হলে মানতে হবে এই নিয়ম!

চোখ রাঙাচ্ছে করোনা! এবার মেট্রো চড়তে হলে মানতে হবে এই নিয়ম!
চোখ রাঙাচ্ছে করোনা! এবার মেট্রো চড়তে হলে মানতে হবে এই নিয়ম! / প্রতীকী ছবি

বংনিউজ ২৪x৭ ডিজিটাল ডেস্কঃ দেশজুড়ে চলছে দ্বিতীয় পর্যায়ের করোনা টিকাকরণ প্রক্রিয়া। এই আবহে ফের চোখ রাঙাচ্ছে করোনা। একাধিক রাজ্যে দ্রুত গতিতে বাড়ছে করোনা সংক্রমণ। এর মধ্যে ১৯ টি জেলায় গত দশদিনে সবথেকে বেশি করোনা সংক্রমণের সংখ্যা সামনে এসেছে। উল্লেখ্য, এই ১৯ টি জেলার মধ্যে শুধুমাত্র মহারাষ্ট্রেরই ১৫ টি জেলা রয়েছে। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রক সূত্রে এমনটাই খবর পাওয়া গিয়েছে। সূত্রের খবর, মহারাষ্ট্রে করোনা ভাইরাসের দ্বিতীয় দাপট শুরু হয়ে গেছে। মহারাষ্ট্রে ইতিমধ্যেই সংক্রমণ রুখতে শুরু হয়েছে লকডাউন, কোথাও আংশিক, কোথাও আবার সম্পূর্ণ। রাতে কোথাও কোথাও কার্ফুও জারি করা হয়েছে। মুম্বইয়ে ৩১ মার্চ পর্যন্ত বন্ধ রাখা হয়েছে স্কুল-কলেজ।

এবার এই পরিস্থিতিতে কড়া পদক্ষেপ গ্রহণ করল মেট্রো রেল। মাস্ক ছাড়া আর কোনোভাবেই মেট্রোতে চড়ার অনুমতি দেওয়া হবে না। বিজ্ঞপ্তি জারি করে মেট্রো কর্তৃপক্ষের তরফ থেকে জানানো হয়েছে যে, করোনা সংক্রমণ বাড়ায়, যাত্রীদের মাস্ক পরা নিয়ে আরও বেশি করে নজরদারি কড়া হবে। মাস্ক ছাড়া আর কোনও যাত্রীকেই মেট্রোতে উঠতে দেওয়া হবে না। এমনকি মাস্ক ছাড়া কোনও যাত্রীকেই স্টেশনে ঢোকার অনুমতি দেবে না আরপিএফ। পাশাপাশি মাস্ক না পরলে, প্রয়োজনে শাস্তিমুলক পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে। এর সঙ্গে যাত্রীদের সামাজিক দূরত্ব বিধিও মানতে হবে। এছাড়া স্যানেটাইজার ব্যবহার করতে বলা হয়েছে।

উল্লেখ্য, বুধবার বিভিন্ন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে করোনার প্রকোপ বৃদ্ধি নিয়ে ভার্চুয়াল বৈঠক করেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। এই বৈঠকে অবিলম্বে দেশের মধ্যে আট রাজ্যের করোনা সংক্রমণ রোধের পরামর্শ দেন। তিনি বলেন, অবিলম্বে এই সংক্রমণ রোধ করা না হলে, তা ফের গোটা দেশে ছড়িয়ে পড়বে।

অন্যদিকে, এই বৈঠকে করোনা সংক্রমণ রুখতে প্রয়োজনে মাইক্রো কনটেইনমেন্ট জোন তৈরি করার কথা বলেন প্রধানমন্ত্রী। এর সঙ্গে প্রয়োজনে প্রত্যেক রাজ্যে পুরোনো সুরক্ষাবিধি চালু করার কথাও বলেন। RTPCR টেস্টের সংখ্যা বাড়ানো এবং পর্যাপ্ত টিকাকরণের কথাও বলেন প্রধানমন্ত্রী। এই বৈঠকের পরেই মেট্রো রেল জারি করেছে করোনা নিয়ে তাঁদের নয়া নির্দেশিকা।

উল্লেখ্য, গত ৮ মার্চ মেট্রোর তরফ থেকে বিজ্ঞপ্তি জারি করে বলা হয়েছিল, চলতি মাসের ১৫ তারিখ থেকে কলকাতা মেট্রোর যাত্রীরা ফের দৈনিক যাত্রার জন্য টোকেন পরিষেবা পেতে চলেছেন। কিন্তু গত শুক্রবারই আবার মেট্রো কর্তৃপক্ষ জানিয়েছিল, ১৫ মার্চ থেকে টোকেন চালু হচ্ছে না। আরও বেশ কিছুদিন করোনাকালীন নিয়ম মেনেই স্মার্ট কার্ড ব্যবহার করতে হবে যাত্রীদের। দেশে আবারও করোনার হার বাড়তে শুরু করেছে। তাই এই পরিস্থিতিতে কোনওরকম ঝুঁকি নিতে চায় না মেট্রো কর্তৃপক্ষ। আর তাই টোকেন চালু করার সিদ্ধান্ত বাতিল করে দেওয়া হয়েছে। পাশাপাশি কবে থেকে টোকেন চালু হবে, সে বিষয়েও এখনই কিছু জানায়নি মেট্রো কর্তৃপক্ষ।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, করোনার মহামারীর কারণে ২০২০ সালের ২৩ মার্চ থেকে কলকাতা মেট্রো রেলের পরিষেবা বন্ধ করে দেওয়া হয়। টানা ১৭৫ দিন পরিষেবা বন্ধ রাখার পর ১৪ সেপ্টেম্বর চালু হয় মেট্রো পরিষেবা।

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন.