শনিবার, ২৮ জানুয়ারি, ২০২৩

শিয়ালদহে দুর্ঘটনার কবলে কুণাল ঘোষ! জনবহুল রাস্তায় তৃণমূল নেতার গাড়িতে বাসের ধাক্কা

আত্রেয়ী সেন

প্রকাশিত: ডিসেম্বর ৯, ২০২২, ১২:২৪ পিএম | আপডেট: ডিসেম্বর ৯, ২০২২, ১২:৩০ পিএম

শিয়ালদহে দুর্ঘটনার কবলে কুণাল ঘোষ! জনবহুল রাস্তায় তৃণমূল নেতার গাড়িতে বাসের ধাক্কা
শিয়ালদহে দুর্ঘটনার কবলে কুণাল ঘোষ! জনবহুল রাস্তায় তৃণমূল নেতার গাড়িতে বাসের ধাক্কা

বংনিউজ২৪x৭ ডিজিটাল ডেস্কঃ হলদিয়ায় কর্মসূচিতে যোগ দিতে যাওয়ার পথে দুর্ঘটনার কবলে পড়লেন তৃণমূল কংগ্রেসের রাজ্য সাধারণ সম্পাদক তথা মুখপাত্র কুণাল ঘোষ। শুক্রবার সকালে শিয়ালদহ স্টেশনের কাছেই দুর্ঘটনার মুখে পড়েন তিনি। জানা গিয়েছে, তাঁর গাড়িতে ধাক্কা মারে একটি বাস। বাসটি বেপরোয়া গতিতে চলছিল বলেই অভিযোগ। ইতিমধ্যেই থানায় অভিযোগ জানিয়েছেন তৃণমূল নেতা।

শুক্রবার অর্থাৎ আজ হলদিয়ায় কর্মসূচি রয়েছে তৃণমূলের রাজ্য সাধারণ সম্পাদক কুণাল ঘোষের। সেই কর্মসূচিতে যোগ দিতে রওনা দিয়েছিলেন তিনি। তাঁর গাড়ির সঙ্গে ছিল পুলিশের গাড়িও। ১০ টা নাগাদ রওনা দিয়েছিলেন তিনি। এরপর শিয়ালদহ স্টেশনের কাছে ঘটে দুর্ঘটনা। জানা গিয়েছে, একটি বাস অন্য একটি বাস্কে ওভারটেক করতে গিয়ে ধাক্কা মারে কুণাল ঘোষের গাড়িতে। সেই সময় গাড়িতেই ছিলেন কুণাল ঘোষ।

শুক্রবার সকালে শিয়ালদহ স্টেশনের কাছেই দুর্ঘটনার মুখে পড়েন তিনি। তাঁর গাড়িতে ধাক্কা লাগে একটি বাসের। বাসটি বেপরোয়া গতিতে চলছিল বলেই অভিযোগ। ইতিমধ্যেই থানায় অভিযোগ জানিয়েছেন কুণাল। দুর্ঘটনার জেরে ক্ষতিগ্রস্ত হয় গাড়ির কিছুটা অংশ। কুণাল ঘোষের দাবি, দুটি বাসের রেষারেষি চলছিল শিয়ালদহ স্টেশনের কাছে। তার জেরেই এই দুর্ঘটনা ঘটে। যদিও কারও কোনও আঘাত লাগেনি।

এদিন দুর্ঘটনা প্রসঙ্গে তৃণমূল নেতা বলেন, ‘সব সময় যেরকম রেষারেষি চলে সেরকই হচ্ছিল। পুলিশে জানানো হয়েছে। তবে বাসটিতে অফিস যাত্রীরা ছিলেন, তাই এই মুহূর্তে বাসটিকে আটকাতে বারণ করেছি। কারণ সেক্ষেত্রে সাধারণ মানুষের ভোগান্তি হবে। বাসের নম্বর ও চালকের নাম রাখা হয়েছে।’ ঘটনার পর থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন তিনি। পাশাপাশি তিনি জানিয়েছেন, পুলিশের যা ব্যবস্থা নেওয়ার তা তাঁরা নেবে। তবে, বাসের যাত্রীদের যাতে কোনও অসুবিধা না হয়, সেই ব্যবস্থা করে দিয়েছেন তিনি। পরে ফের হলদিয়ার উদ্দেশে রওনা দেন।

প্রসঙ্গত, এই ঘটনায় ফের একবার পথ নিরাপত্তা নিয়ে প্রশ্ন উঠল। বাসের রেষারেষির কারণে দুর্ঘটনা নতুন কোনও ঘটনা নয়। এক্ষেত্রেও আর বড় বিপদ ঘটতে পারত। বারবার সচেতন করার পরেও অবস্থার পরিবর্তন হচ্ছে না। চলেছে। যদিও দুর্ঘটনা অনেকটাই কমেছে বলে দাবি তৃণমূল নেতা কুণাল ঘোষের। তিনি বলেন, ‘এক্ষেত্রে পুলিশ-প্রশাসনের কিছুই করার নেই। মানুষকে সচেতন হতে হবে। গতকাল চিংড়িহাটায় একজন নেশাগ্রস্ত অবস্থায় এতজনকে মারল। পুলিশ তো আটকানোর চেষ্টা করেছিল। কিন্তু তাঁরাও জখম।’