ভোটের দিন ঘোষণা হতেই, ঝাড়গ্রামে পড়ল মাওবাদী পোস্টার!

ভোটের দিন ঘোষণা হতেই, ঝাড়গ্রামে পড়ল মাওবাদী পোস্টার! / নিজস্ব ছবি
ভোটের দিন ঘোষণা হতেই, ঝাড়গ্রামে পড়ল মাওবাদী পোস্টার! / নিজস্ব ছবি

ঝাড়গ্রাম নিজস্ব প্রতিনিধিঃ সম্প্রতি ঘোষণা হয়েছে বঙ্গে বিধানসভার ভোটের দিন। আর তারপরেই ফের লাল কালি আর সাদা কাগজের আত্মপ্রকাশ। এই ঘটনাটি ঘটেছে ঝাড়গ্রামের বিনপুর, বেলপাহাড়ি, চিয়ানবেড়া, পলাশবনী ইত্যাদি গ্রামের নানা এলাকায়।

উল্লেখ্য, ২৭ মার্চ ঝাড়গ্রামের ৪ টি বিধানসভা আসনে ভোট রয়েছে। বেলপাহাড়ি এবং খড় পালগ্রামে মাওবাদীদের দেওয়া পোস্টার নজরে আসে। প্রধানমন্ত্রী গ্রাম সড়ক যোজনা ইন্ডিকেশন বোর্ডে এই পোস্টার লাগানো ছিল। এছাড়াও বাড়ির দেওয়াল, গাছের গায়ে একই ধরনের পোস্টার দেখা যায়। সব জায়গাতেই একই দাবি, ভোট বয়কট করুন। গোটাটাই বাঁকুড়া জেলা সংলগ্ন জঙ্গল এলাকা বলে পরিচিত।

অন্যদিকে, বিনপুর থানা মালাবতি গ্রামের রাস্তার উপরও বেশ কিছু এমনই পোস্টার পাওয়া গেছে। এর প্রতিটি পোস্টারের বয়ানে তৃণমূল এবং বিজেপি থেকে দূরে থাকার এবং কিছু কিছু জায়গায় ভোট বয়কটের ডাক দেওয়া হয়েছে।

এদিকে, এই পোস্টার গুলির খবর পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে পুলিশ সেগুলি উদ্ধারে ব্যস্ত, ঠিক তখন মাওবাদীদের গোর লালগড়ে বিভিন্ন এলাকায় যৌথবাহিনীর রুটমার্চ চলছে। এই কাজে ব্যস্ত এসপি ইন্দিরা মুখার্জি। মানুষদের সঙ্গে কথা বলে তাঁদের আশ্বস্ত করছেন। এবার ভোটে যে কোনও সমস্যা নেই সেকথা বোঝাচ্ছেন। সমস্যা মনে করলে, থানায় খবর দেওয়ার কথাও বলছেন।

মাওবাদীদের পোস্টার প্রসঙ্গে তিনি জানিয়েছেন যে, এ ধরনের কিছু পোস্টার পাওয়া গেছে। যদিও তিনি বলেন যে, এলাকায় মাওবাদী গতিবিধি একদমই নেই। তারপরেও কেন এই ধরনের পোস্টার পড়ল, তা তিনি খতিয়ে দেখার আশ্বাস দিয়েছেন।

অন্যদিকে, এই পোস্টার পড়া নিয়ে রাজনৈতিকমহলে তরজা শুরু হয়ে গেছে ইতিমধ্যেই। আর সাধারণ মানুষ এই পোস্টার নিয়ে আতঙ্কিত হলেও তাঁদের বক্তব্য, ভোট এলেই এ ধরনের পোস্টার এখন অনেকটা স্বাভাবিক ব্যাপার হয়ে গেছে।

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন.