সব জল্পনার অবসার ঘটিয়ে বিজেপিতে যোগ দিলেন মিঠুন চক্রবর্তী

সব জল্পনার অবসার ঘটিয়ে বিজেপিতে যোগ দিলেন মিঠুন চক্রবর্তী
সব জল্পনার অবসার ঘটিয়ে বিজেপিতে যোগ দিলেন মিঠুন চক্রবর্তী / নিজস্ব ছবি

বংনিউজ২৪x৭ ডেস্কঃ রাজ্যের দৌড়গোড়ায় ২০২১ এর বিধানসভা ভোট। রাজ্যের শাসক দলে কে আধিপত্ত বিস্তার করবে তা নিয়ে চলছে রাজনৈতিক বিরোধ। রাজনৈতিক দলগুলি তাঁদের অবস্থান পাকাপক্ত করতে আসরে নেমে পড়েছে। আর এবার নির্বাচনের আগে ফের রাজ্যে আসছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী (PM Modi)। আজ তিনি ব্রিগেড এ সভা করবেন। ইতিমধ্যেই ব্রিগেড সভা শুরু হয়ে গেছে। মঞ্চে বক্তব্য রাখছেন বিজেপির উচ্চপদস্থ নেতা-মন্ত্রিরা। এখনও প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য শুরু হয়নি। আর তার আগে সব জল্পনার অবসার ঘটিয়ে ধূতি-পাঞ্জাবি পরে বিগ্রেডের মঞ্চে এসে পৌঁছেছেন মিঠুন চক্রবর্তী। রবিবার ব্রিগেডের মঞ্চে মিঠুনকে স্বাগত জানালেন বিজেপি নেতা কৈলাস বিজয়বর্গীয়। মিঠুনকে ঘিরে উচ্ছাস দেখা গেল সমর্থকদের মধ্যে।

এদিন বেলা ১১.৩০ টার কিছু পরে পূর্ব কলকাতার বেলগাছিয়া থেকে একটি নীলবাতি লাগানো গাড়িতে ব্রিগেডের পথে রওনা দেন মিঠুন। এদিন মিঠুনের পরণে ধুতি-পাঞ্জাবি। গায়ে জড়ানো পাতলা চাদর। মাথায় আঁটসাঁট টুপি। চোখে রোদচশমা। গলায় জড়ানো রেশমের স্কার্ফ। তাঁর গাড়ির সঙ্গে একটি নিরাপত্তারক্ষীর গাড়িও ছিল।

ব্রিগেডে পৌঁছনোর পথে জনতা এবং ভক্তরা একাধিক বার মিঠুনের গাড়ি ঘিরে ধরে। গাড়ি থমকেও যায় বৌবাজারে। নিরাপত্তারক্ষীরা রাস্তা পরিষ্কার করে মিঠুনের গাড়ি রওনা করে দেওয়ার চেষ্টা করেন। মিঠুন ভক্তদের উদ্দেশে হাত নেড়ে বলেন, তাঁর গাড়ি ছেড়ে দিতে। কিন্তু জনতা সে কথা শুনতে নারাজ। অগত্যা অন্য রাস্তা দিয়ে নিয়ে যাওয়া হয় মিঠুনের গাড়ি। অন্যদিকে সভায় পৌঁছতে শুরু করেছেন যশ দাশগুপ্ত, হিরণ চট্টোপাধ্যায়, রিমঝিম মিত্র, পায়েল সরকার, শ্রাবন্তী চট্টোপাধ্যায়রা।

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন.