হঠাতই মোদিকে চিঠি প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিংয়ের

হঠাতই মোদিকে চিঠি প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিংয়ের
হঠাতই মোদিকে চিঠি প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিংয়ের

করোনার দ্বিতীয় ঢেউ যখন আছরে পড়েছে তখন বর্তমান প্রধানমন্ত্রীকে চিঠি লিখলেন প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী। বর্তমান পরিস্থিতিকে কিভাবে মোকাবিলা করা যায় তার বেশ কিছু পরামর্শ রয়েছে ওই চিঠিতে। নরেন্দ্র মোদি কে চিঠিতে দেশ জুড়ে ভ্যাকসিনের যোগান বাড়ানোর কথা বলেছেন প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং।

চিঠিতে মনমোহন সিং লিখেছেন, কোভিশিল্ড-কোভ্যাকসিন বাদ দিয়ে অন্য সংস্থার ভ্যাকসিনও আনতে হবে বাজারে। সেক্ষেত্রে বিশ্বাসযোগ্য কোনও সংস্থাকে সেই দায়িত্ব দিতে হবে। পাশাপাশি তাঁর আরও পরামর্শ, জরুরীকালীন অবস্থার জন্য কিছু পরিমাণ ভ্যাকসিন মজুত রেখে বাকিগুলো বিভিন্ন রাজ্যের মধ্যে বণ্টন করে দিতে হবে।

টিকাকরণ প্রক্রিয়ায় আরও স্বচ্ছতা আনার কথা বলেছেন প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী। একইসঙ্গে কোন রাজ্যে কত টিকার প্রয়োজন, কত টিকা কোন রাজ্যে যাচ্ছে , বা কোথায় টিকা তৈরি হচ্ছে সেই বিষয়ে সমস্ত তথ্য সামনে অানার কথা জানিয়েছেন তিনি।

এখানেই শেষ না করে মনমোহন সিং পরামর্শ দিয়ে আরও লিখেছেন, আগামী ৬ মাসে কতজনকে টিকা যাবে, তার একটা লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করে সেইমত নির্মাণকারী সংস্থাগুলিকে আগে থেকে অর্ডার দেওয়া উচিত। এছাড়াও কাদের টিকা দেওয়ার ক্ষেত্রে অগ্রাধিকার দেওয়া হবে সেই বিষয়টি সংশ্লিষ্ট রাজ্যের উপরেই ছেড়ে দিতে বলেছেন তিনি। বয়স ৪৫ বছরের কম হলেও সামনের সারির কর্মীদের করোনার টিকা দেওয়া উচিত বলেও জানান তিনি। পাশাপাশি, আরও বেশি পরিমাণ ভ্যাকসিন যাতে প্রস্তুত করা সম্ভব হয় সেই কারণে আর্থিক বিষয়ের দিকটিও নিশ্চিত করার কথা বলেছেন প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং।স্কুল শিক্ষক, ট্যাক্সি চালকরাও যাতে প্রথম সারির করোনা যোদ্ধা হিসেবে ভ্যাকসিনের ডোজ নিতে পারেন, সেই অনুরোধও চিঠিতে করেছেন প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী।

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন.