নিছকই দুর্ঘটনা নাকি খুন? কোচবিহারে পরিত্যক্ত গাড়ি থেকে উদ্ধার ঝলসানো দেহ

নিছকই দুর্ঘটনা নাকি খুন? কোচবিহারে পরিত্যক্ত গাড়ি থেকে উদ্ধার ঝলসানো দেহ
নিছকই দুর্ঘটনা নাকি খুন? কোচবিহারে পরিত্যক্ত গাড়ি থেকে উদ্ধার ঝলসানো দেহ / প্রতীকী ছবি

বংনিউজ ২৪x৭ ডিজিটাল ডেস্কঃ শীতের রাত, তাই স্বাভাবিকভাবেই চারিদিক শুনশান। এমন সময় আচমকাই আর্তনাদ। বাঁচার জন্য কাতর আর্তি। সেই চিৎকার শুনেই আতঙ্কিত এলাকাবাসী রাতে বাইরে বেরিয়ে এসেছিলেন। এরপর সেই আওয়াজকে অনুসরণ করে গাড়ির সার্ভিস সেন্টারের কাছে পৌঁছান। এরপর যা দেখেন, তাতে তাঁরা আঁতকে ওঠেন। দেখেন দাউদাউ করে জ্বলছে একটি গাড়ি। আর তার ভিতরে অগ্নিদগ্ধ অবস্থায় পড়ে রয়েছেন একজন। ভয়ঙ্কর এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে ইতিমধ্যেই কোচবিহারে বাবুরহাট এলাকায় চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে। কীভাবে ঘটল এমন মর্মান্তিক ঘটনা, তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ।

উল্লেখ্য, কোচবিহারের চকচকার বাবুরহাট এলাকায় গাড়ির সার্ভিস সেন্টার রয়েছে। সেখানেই দীর্ঘদিন ধরে একটি গাড়ি রাখা থাকত। ওই পরিত্যক্ত গাড়িটিতেই আগুন জ্বলতে দেখেন স্থানীয় বাসিন্দারা। আর সেই গাড়ির ভিতরেই ঝলসানো অবস্থায় একজন দাপাদাপি করছিলেন। তা দেখেই কোতোয়ালি থানায় খবর দেওয়া হয়। কোতোয়ালি থানার পুলিশ খবর পাওয়া মাত্রই ঘটনাস্থলে পৌঁছান। তাঁরা দেহটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য পাঠান

পরিত্যক্ত গাড়ি থেকে অগ্নিদগ্ধ দেহ উদ্ধারের ঘটনায় রহস্য দানা বেঁধেছে। দেহটি পুরুষ নাকি মহিলার, তা এখনও স্পষ্ট নয়। নিহতের পরিচয়ও এখনও জানা সম্ভব হয়নি। পাশাপাশি এটা নিছকই খুন না দুর্ঘটনা, তাও স্পষ্ট নয়। তাই তদন্তের স্বার্থে সবদিক খতিয়ে দেখছে পুলিশ। এলাকায় আরও কেউ নিখোঁজ ছিলেন কিনা তাও খতিয়ে দেখা হচ্ছে।