অন্ত্বঃসত্ত্বা মহিলারা কি আদৌ নিতে পারবেন করোনা টিকা? কি বলছে কেন্দ্র

অন্ত্বঃসত্ত্বা মহিলারা কি আদৌ নিতে পারবেন করোনা টিকা? কি বলছে কেন্দ্র
অন্ত্বঃসত্ত্বা মহিলারা কি আদৌ নিতে পারবেন করোনা টিকা? কি বলছে কেন্দ্র

অন্ত্বঃসত্ত্বা মহিলারা করোনা টিকা নিতে পারবেন কিনা তা নিয়ে সংশয় তৈরি হয়েছিল। তবে এবার সেই বিষয়ে সিলমোহর দিল কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রক। টিকাকরণ নিয়ে ন্যাশনাল টেকনিকাল অ্যাডভাইসরি গ্রূপের (এনটিএজিআই) সুপারিশের ভিত্তিতে সেই ছাড়পত্র দিল কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রক।

জাতীয় টিকাকরণ কর্মসূচির আওতায় যেভাবে ১৮ বছরের ঊর্ধ্বে টিকা প্রদান করা হচ্ছে, সেভাবেই অন্ত্বঃসত্ত্বা মহিলাদের টিকা প্রদান করা হবে কেন্দ্রের তরফে জানানো হয়েছে। শুক্রবার মন্ত্রকের তরফে একটি বিবৃতিতে জানানো হয়েছে, এবার থেকে অন্ত্বঃসত্ত্বা মহিলারা কো-উইন পোর্টালে গিয়ে টিকাকরণের জন্য স্লট বুক করতে পারেন। অথবা নিকটবর্তী টিকাকরণকেন্দ্র নিয়ে নাম নথিভুক্ত করে প্রতিষেধক নিতে পারবেন। ইতিমধ্যে অন্ত্বঃসত্ত্বা মহিলাদের টিকাকরণ সংক্রান্ত যাবতীয় তথ্য দেশের সব রাজ্য এবং কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলকে দেওয়া হয়েছে।

ইন্ডিয়ান কাউন্সিল অফ মেডিকেল রিসার্চের (আইসিএমআর) অধিকর্তা বলরাম ভার্গব বলেন, ‘অন্তঃসত্ত্বা মহিলাদের টিকা দেওয়া যেতে পারে বলে নির্দেশিকা দিয়েছে কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রক। আইসিএমআরের প্রেগকোভিড রেজিস্ট্রি থেকে আমরা জানিয়েছি যে অন্তঃসত্ত্বা মহিলাদের ক্ষেত্রে টিকাকরণ কার্যকরী এবং তা দেওয়া উচিত।’ তারই রেশ ধরে নীতি আয়োগের (স্বাস্থ্য) সদস্য ভি কে পাল জানান, অন্ত্বঃসত্ত্বা মহিলা এবং সদ্যোজাত শিশুর মায়েদের জন্য চারটি টিকা (কোভিশিল্ড, কোভ্যাক্সিন, স্পুটনিক ভি এবং মর্ডানা) সুরক্ষিত। তাতে ছাড়পত্র দিয়েছে কেন্দ্র।

সম্প্রতি কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকের তরফে বলা হয়, ‘অধিকাংশ অন্ত্বঃসত্ত্বা মহিলা উপসর্গহীন বা মাঝারি উপসর্গ-বিশিষ্ট হন। কিন্তু তাঁদের স্বাস্থ্যের দ্রুত অবনতি করতে থাকে। ভ্রূণকেও প্রভাবিত করতে পারেন। তাই টিকা নেওয়ার পাশাপাশি করোনার বিরুদ্ধে বিভিন্ন সতর্কতামূলক ব্যবস্থা নেওয়া গুরুত্বপূর্ণ। তাই অন্ত্বঃসত্ত্বা মহিলাদের টিকা নেওয়ার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।’