দীর্ঘ সময় আটক থাকার পর, ১৪৪ ধারা ভঙ্গের অভিযোগে গ্রেফতার কংগ্রেস নেত্রী প্রিয়াঙ্কা গান্ধী!

দীর্ঘ সময় আটক থাকার পর, ১৪৪ ধারা ভঙ্গের অভিযোগে গ্রেফতার কংগ্রেস নেত্রী প্রিয়াঙ্কা গান্ধী!
দীর্ঘ সময় আটক থাকার পর, ১৪৪ ধারা ভঙ্গের অভিযোগে গ্রেফতার কংগ্রেস নেত্রী প্রিয়াঙ্কা গান্ধী!

বংনিউজ ২৪x৭ ডিজিটাল ডেস্কঃ অবশেষে সীতাপুরের গেস্ট হাউসে দীর্ঘ ৩০ ঘণ্টার বেশি সময় আটকে থাকার পর গ্রেফতার হলেন কংগ্রেস নেত্রী প্রিয়াঙ্কা গান্ধী। সূত্রের খবর, ১৪৪ ধারা ভঙ্গের অভিযোগে পুলিশ প্রিয়াঙ্কা গান্ধীকে আটক করেছে। এক সংবাদসংস্থা সূত্রে দাবি করা হয়েছে যে, প্রিয়াঙ্কা গান্ধী-সহ মোট ১১ জন কংগ্রেস নেতার বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের করা হয়েছে।

রবিবার কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর ছেলের গাড়ির চাকায় পিষ্ট হয়ে লখিমপুর খেরিতে ৪ জন কৃষকের মৃত্যু হয়। এমন মর্মান্তিক ঘটনার পর থেকেই পরিস্থিতি অগ্নিগর্ভ হয়ে ওঠে সেখানে। অশান্তির মাঝে পড়ে আরও ৪ জন প্রাণ হারান। এই খবর ছড়িয়ে পড়তেই, ওইদিন রাতেই উত্তরপ্রদেশের বিশেষ দায়িত্বপ্রাপ্ত কংগ্রেস নেত্রী প্রিয়াঙ্কা গান্ধী লখিমপুর যাওয়ার চেষ্টা করেন। কিন্তু তাঁকে লখিমপুরের আগে সীতাপুরের এক গেস্ট পুলিশ আটকায়। এবার তাঁকে গ্রেফতার করা হল।

অন্যদিকে, প্রিয়াঙ্কা গান্ধীর উপর ড্রোনে নজরদারি চালানো হচ্ছে অভিযোগ করে সরব কংগ্রেস। উত্তরপ্রদেশে সীতাপুরে আটক থাকা প্রিয়াঙ্কা গান্ধীর উপর কারা এই নজরদারি চালাচ্ছিল তা নিয়ে সরব হয়েছে কংগ্রেস। ছত্তিশগড়ের মুখ্যমন্ত্রী ভূপেশ বাঘেল একটি ড্রোনের ভিডিও টুইটারে পোস্ট করেছেন। তিনি টুইটারে লেখেন, ‘প্রিয়াঙ্কা গান্ধীর রুমের উপর এটি কার ড্রোন। তাঁকে ৩০ ঘণ্টারও বেশি সময় ধরে আটকে রাখা হয়েছে কেন? কে উত্তর দেবে?’

আবার এদিনই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে ভিডিও বার্তায় চ্যালেঞ্জ জানিয়েছেন কংগ্রেস নেত্রী প্রিয়াঙ্কা গান্ধী। মঙ্গলবার সকালে একটি টুইটে ভিডিও পোস্ট করে সরাসরি প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর দিকে প্রশ্ন ছুড়ে দিয়েছেন প্রিয়াঙ্কা। ভিডিওটি পোস্ট করে তিনি লিখেছেন, ‘আপনি কী এটা দেখেছেন?’ প্রধানমন্ত্রীর লখনউ সফরের আগেই তাঁকে বার্তা দিয়েছেন কংগ্রেস নেত্রী। তাঁর প্রশ্ন, ‘কেন এই ব্যক্তিকে এখনও গ্রেফতার করা গেল না?’ মোদীকে উদ্দেশ্য করে তিনি বলেন, ‘লখিমপুর আসুন। যারা এই দেশের অন্নদাতা, যারা দেশকে স্বাধীনতা দিয়েছেন তাঁদের কষ্ট এসে দেখুন, শুনুন।’

রবিবার লখিমপুর যাওয়ার পথে পুলিশের সঙ্গে প্রিয়াঙ্কার বচসার ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় আগেই ভাইরাল হয়েছে। সেই ভিডিও দেখে অনেকেই তাঁর সাহসকে কুর্নিশ জানিয়েছেন। মঙ্গলবার বোন প্রিয়াঙ্কা গান্ধীর প্রশংসা করে রাহুল গান্ধী টুইট করেন। তিনি লেখেন, ‘যাকে হেফাজতে রাখা হয়েছে, সে ভয় পায় না। একজন সত্যিকারের কংগ্রেসী। সে কখনও হারতে শেখেনি। সত্যাগ্রহ থামবে না।’

উল্লেখ্য, সীতাপুরে আটক থাকা অবস্থাতেই প্রিয়াঙ্কা গান্ধী বার্তা দিয়েছিলেন, ছাড়া পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গেই তিনি খেরিতে শোকাহত কৃষক পরিবারের সঙ্গে দেখা করতে যাবেন। এরপরেই এদিন তাঁকে গ্রেফতার করা হয়।