বড় খবর! ১০০ কোটি করোনা টিকা তৈরি করবে ভারত! রইল বিস্তারিত

বড় খবর! ১০০ কোটি করোনা টিকা তৈরি করবে ভারত! রইল বিস্তারিত
বড় খবর! ১০০ কোটি করোনা টিকা তৈরি করবে ভারত! রইল বিস্তারিত / নিজস্ব ছবি

বংনিউজ২৪x৭ডিজিটাল ডেস্কঃ করোনা টিকার বাজার ধরে রাখতে এই মুহূর্তে শুরু হয়েছে জোরদার লড়াই। টিকার উৎপাদন এবং ব্যবসায় বিশ্ববাজারে অনেক এগিয়ে রয়েছে ভারত অন্যান্য দেশের তুলনায়। অন্যদিকে চিন চেষ্টা করছে বিশ্ববাজারে করোনা টিকাকে কেন্দ্র করে নিজেদের আধিপত্য প্রতিষ্ঠা করতে। এই পরিস্থিতিতে চিনের আগ্রাসী মনোভাব রুখতে এবং করোনা প্রতিরোধে বড় পদক্ষেপ গ্রহণ করল ‘কোয়াড’ অন্তর্ভুক্ত দেশগুলি। ভারত, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র, অস্ট্রেলিয়া এবং জাপানের এই যৌথ সিদ্ধান্ত আগামী দিনে ইন্দো-প্যাসিফিক দেশগুলির করোনা সংক্রমণের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে বিশেষ তাৎপর্যপূর্ণ হবে বলেই মনে করছে বিশেষজ্ঞমহল।

ভারত-প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলে চিনের আগ্রাসী মনোভাবের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তুলতে, এবং প্রশান্ত-মহাসাগরীয় অঞ্চলের নিশ্চয়তার জন্য গড়ে উঠেছে এই কোয়াড। ভারত, জাপান, আমেরিকা এবং অস্ট্রেলিয়াকে নিয়ে গঠিত হয়েছে এই চতুর্দেশীয় অক্ষ বা কোয়াড। শুক্রবার সন্ধ্যায় ভার্চুয়াল বৈঠকে বসেছিলেন এই কোয়াডের রাষ্ট্রপ্রধানরা। উল্লেখ্য, কোয়াডের এই বৈঠক ছিল বাইডেন প্রেসিডেন্ট হওয়ার পর প্রথম বৈঠক। সেখানে ভ্যাকসিনের ১০০ কোটি ডোজ় তৈরির জন্য ভারতে লগ্নির কথা জানিয়েছে আমেরিকা ও বাকি দেশগুলি। একে এক কথায় যুগান্তকারী সিদ্ধান্ত বলা যায়। কোয়াড ক্রমশই আরও পরিণত ও অভিজ্ঞ হয়ে উঠছে বলে এদিন মন্তব্য করেন মোদি। তিনি বলেন, ‘কোয়াড একটি শক্তিশালী স্তম্ভ হয়ে উঠেছে অল্প সময়ের মধ্যেই।’

ভারত-প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলে বিভিন্ন দেশে ২০২২ সালের মধ্যে কোভিড টিকাকরণের উদ্যোগ নিতে চাইছে কোয়াডের সদস্যরা। টিকাকরণের জন্য প্রায় ১০০ কোটি ডো়জ তৈরির লক্ষ্যমাত্রা নেওয়া হয়েছে। এর জন্য প্রয়োজনীয় টিকা তৈরি করা হবে ভারতে। এই টিকা তৈরির জন্য ভারতে লগ্নির সম্ভাবনাও তৈরি হয়েছে। চারটি দেশই পরস্পরের সঙ্গে হাতে হাত মিলিয়ে করোনা টিকা তৈরির প্রক্রিয়ায় গতি আনতে সম্মত হয়েছে।

ইতিমধ্যেই বিশ্বের একাধিক দেশে করোনা টিকা পাঠিয়েছে ভারত। সেই টিকার জন্য ভারত প্রশংসিত হয়েছে রাষ্ট্রসংঘ, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার তরফেও। বিভিন্ন দেশের রাষ্ট্রপ্রধানরা প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর নেতৃত্বে ভ্যাকসিন উৎপাদন এবং প্রয়োজনের সময় বিভিন্ন দেশে তা পৌঁছে দেওয়ার পদক্ষেপের ভূয়সী প্রশংসা করেছেন। ভারতে প্রস্তুত দুই করোনা টিকা একাধিক আন্তর্জাতিক ক্ষেত্রের মাধ্যমে বিশ্বের একাধিক দেশে উপহার ও ব্যবসায়িকভাবে পৌঁছে দিয়েছে ভারত। ভারতের এই পদক্ষেপের কারণেই কোয়াডের প্রত্যেকটি দেশই নরেন্দ্র মোদীর পাশে দাঁড়ানোর কথা জানিয়েছে। শুক্রবার কোয়াডের এই বৈঠকে টিকা ছাড়াও আলোচনা হয়েছে আবহওয়ার পরিবর্তন, শান্ত ভারত-প্রশান্ত মহাসাগরের বিষয়ে।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, ২০০৭ সালে তৈরি হয়েছিল এই কোয়াড। চিনের আগ্রাসন প্রতিরোধ করা এবং নিজেদের মধ্যে কৌশলগত আদানপ্রদান বৃদ্ধি করাই ছিল এই কোয়াডের মূল উদ্দেশ্য। এর আগেও একাধিকবার কোয়াডের বৈঠক হয়েছে। তবে, করোনা টিকার বাজার ধরার লক্ষ্যে এবং করোনা টিকাকে কেন্দ্র করে চিনের আগ্রাসন রুখতে কোয়াডের এই বৈঠক অন্য মাত্রা যোগ করল বলেই মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা।

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন.