নির্বাচনে টিকিট না পেয়ে কি তৃণমূল ছাড়ার কথা ভাবছেন রত্না ঘোষ কর?

নির্বাচনে টিকিট না পেয়ে কি তৃণমূল ছাড়ার কথা ভাবছেন রত্না ঘোষ কর?
নির্বাচনে টিকিট না পেয়ে কি তৃণমূল ছাড়ার কথা ভাবছেন রত্না ঘোষ কর? / ছবি সৌজন্যে- Facebook Post By @aitcratnaghoshkar

বংনিউজ২৪x৭ডিজিটাল ডেস্কঃ বাংলার আসন্ন বিধানসভা নির্বাচনে প্রার্থী তালিকা ঘোষণার সঙ্গে সঙ্গে বিক্ষোভ, অশান্তি শুরু হয়ে গেছে। অনেকেই ইতিমধ্যেই দল ছেড়েছেন, কেউ ছাড়বেন বলে হুঁশিয়ারি দিয়েছেন। তার একমাত্র কারণ এবার অনেকেই নির্বাচনের টিকিট পাননি। সেই তালিকায় রয়েছেন বহু তাবড় তাবড় নেতা-নেত্রীরা। তাঁদের ক্ষোভের মূল কারণ দলের প্রার্থী তালিকা প্রকাশ পাওয়ার পর, সেখানে তাদের জায়গায় একঝাঁক তারকা মুখ প্রাধান্য পেয়েছে। ক্রমশই দলের অভ্যন্তরে বাড়ছে বিক্ষোভ।

এবার দল ছাড়ার তালিকায় আরও এক নেত্রীর নাম যুক্ত হয়েছে। তিনি হলেন চাকদার বিদায়ী বিধায়ক রত্না ঘোষ কর। এবারে বিধানসভা নির্বাচনে প্রার্থী তালিকায় তাঁর নাম নেই। আজই রাজ্য নেত্রীর কাছে সংগঠনের পদ থেকে লিখিত চিঠি দিয়ে, অব্যাহতি চেয়েছেন রত্না ঘোষ কর। আজ সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে তিনি দলের বিরুদ্ধে ক্ষোভ প্রকাশ পড়েন।

তিনি বলেন যে, ‘কোনদিন দলের বিরুদ্ধে মুখ খোলেননি! ন্যূনতম সম্মান প্রত্যেকটি মানুষেরই প্রাপ্য! কোনও হেভিওয়েট প্রার্থী টিকিট পেলে কিছু মনে হতো না। কিন্তু বয়সে ছোট, যিনি জীবনে কখনও তৃণমূল করেননি, দলের পতাকা হাতে নেননি, তাঁকেই প্রার্থী বলে ঘোষণা করেছেন দলের সুপ্রিমো। তাঁকে টিকিট দেওয়ায় আমি ক্ষুব্ধ। ভবিষ্যতে আর তৃণমূল করব না। কোন দল করব, তা এখনও ঠিক করিনি, তবে রাজনৈতিক মঞ্চেই এই অসম্মানের আমি জবাব দেব।’

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, এই দল ছাড়ার ধারা অব্যাহত রয়েছে। অনেকেই অসম্মানের যুক্তি তুলে, দল ছাড়ার কথা বলছেন। এদিন বিজেপি নেতা মুকুল রায় জানিয়েছেন যে, একে একে অনেক তৃণমূলের নেতা-নেত্রী ক্রমাগত ফোন করে বিজেপিতে যোগ দেওয়ার ইচ্ছের প্রকাশ করেছেন। আজই তৃণমূলের সোনালী গুহ বিজেপিতে যোগদানের ইচ্ছের কথা জানিয়েছেন মুকুল রায়কে। মুকুল রায় জানিয়েছেন যে, সোনালী গুহ প্রার্থী না হয়ে, শুধুমাত্র সম্মানের সঙ্গে কাজ করার ইচ্ছে প্রকাশ করেছেন তাঁর কাছে।

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন.