নেতাজির প্রতি শ্রদ্ধার্ঘ্য! এবার ২৩ জানুয়ারি থেকেই শুরু হবে প্রজাতন্ত্র দিবস উদযাপন, ঘোষণা কেন্দ্রের

নেতাজির প্রতি শ্রদ্ধার্ঘ্য! এবার ২৩ জানুয়ারি থেকেই শুরু হবে প্রজাতন্ত্র দিবস উদযাপন, ঘোষণা কেন্দ্রের
নেতাজির প্রতি শ্রদ্ধার্ঘ্য! এবার ২৩ জানুয়ারি থেকেই শুরু হবে প্রজাতন্ত্র দিবস উদযাপন, ঘোষণা কেন্দ্রের

সামনেই ২৩ জানুয়ারি, নেতাজি সুভাষ চন্দ্র বসুর জন্মদিন। ঠিক তার দু’দিন পরই প্রজাতন্ত্র দিবস। এবার এই বিশেষ দু’দিনের অনুষ্ঠান উদযাপনের জন্য বিশেষ এক উদ্যোগ নিল কেন্দ্রীয় সরকার। এবার থেকে ২৩ জানুয়ারি থেকেই শুরু হয়ে যাবে প্রজাতন্ত্র দিবস পালনের অনুষ্ঠান। এমনটাই ঘোষণা করল কেন্দ্র। নেতাজিল্র জন্মবার্ষিকীকে মর্যাদা দিতেই এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে জানা গিয়েছে।

একই সঙ্গে কেন্দ্রীয় সূত্রে এও জানা গিয়েছে যে, শুধু চলতি বছরই নয়, সুভাষচন্দ্র বসুর জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে এখন থেকে প্রতি বছরই ২৩ জানুয়ারি থেকে প্রজাতন্ত্র দিবসের উদযাপন শুরু হবে। এতদিন প্রজাতন্ত্র দিবসের সরকারি আনুষ্ঠানিকতা শুরু হতো ২৪ জানুয়ারি থেকে। পাশাপাশি আলাদা ভাবে নেতাজির জন্মদিনটিও পালিত হত। তবে এবার সরকারি সূত্রে খবর, নতুন করে ভারতের ইতিহাস ও সংস্কৃতির গুরুত্বপূর্ণ দিকগুলিকে বিশেষ ভাবে উদযাপন ও স্মরণের সিদ্ধান্ত নিয়েছে কেন্দ্র। সেই সূত্রেই এবার থেকে সুভাষচন্দ্র বসুর জন্মদিন থেকেই প্রজাতন্ত্র দিবসের আনুষ্ঠানিক উদযাপন শুরু করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

এর আগে ২৩ জানুয়ারিকে পরাক্রম দিবস হিসাবেও পালন করা শুরু করে মোদি সরকার। নেতাজিকে শ্রদ্ধা জানাতে ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়ালে এক বিশেষ অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন খোদ প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। একইসঙ্গে সারা দেশে নেতাজি সুভাষ চন্দ্র বসুর স্মৃতিবিজরিত স্থানগুলির প্রচার করার পরিকল্পনা তৈরি করেছিল। গত বছর অক্টোবরে কেন্দ্রের পর্যটন মন্ত্রক আজাদ হিন্দ সরকার গঠনের বার্ষিকীতে কিউরেটেড ট্যুরের পরিকল্পনার কথা জানায়। এবছর নেতাজির জন্মদিন থেকেই শুরু হয়ে যাবে প্রজাতন্ত্র দিবসের প্যারেড বা কুচকাওয়াজের অনুষ্ঠান। একইসঙ্গে দেশনেতাকে শ্রদ্ধার্ঘ্য জানাতে আরও জানা পরিকল্পনা করছে কেন্দ্র।