‘বিবেকানন্দ ঠাকুর’! বাংলার মনিষীদের নিয়ে বলতে গিয়ে ভুল করলেন জেপি নাড্ডা, কটাক্ষ তৃণমূলের

‘বিবেকানন্দ ঠাকুর’! বাংলার মনিষীদের নিয়ে বলতে গিয়ে ভুল করলেন জেপি নাড্ডা, কটাক্ষ তৃণমূলের
‘বিবেকানন্দ ঠাকুর’! বাংলার মনিষীদের নিয়ে বলতে গিয়ে ভুল করলেন জেপি নাড্ডা, কটাক্ষ তৃণমূলের / ছবি সৌজন্যে- Tweeted By @JPNadda

বংনিউজ ২৪x৭ ডিজিটাল ডেস্কঃ সামনেই বঙ্গে বিধানসভা নির্বাচন। আর এই নির্বাচনকে কেন্দ্র করে ক্ষমতা দখলের লড়াইয়ে মাঠে নেমে নিজ নিজ প্রস্তুতিতে ব্যস্ত বিভিন্ন রাজনৈতিক দল। এবারের বিধানসভা নির্বাচনে বিজেপির মূল লক্ষ্য বাঙালির আবেগকে হাতিয়ার করে, বঙ্গের শাসনভার দখল করা। আবার বিজেপির বিরোধিতায় কোনও ফাঁক রাখছে না রাজ্যের শাসকদলও। সব মিলিয়ে ভোটের দিনক্ষণ ঘোষণার আগেই রণক্ষেত্রের রূপ নিয়েছে বাংলার রাজ্য-রাজনীতি।

এবার নিজের বক্তব্যে বাঙালি মনিষীদের নিয়ে কথা বলতে গিয়ে বিতর্কে জড়ালেন বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জেপি নাড্ডা। তাঁর ‘বিবেকানন্দ ঠাকুর’ মন্তব্যকে হাতিয়ার করেই কটাক্ষ করতে ছাড়ল না রাজ্যের শাসকদল। উল্লেখ্য, শনিবার ফের বাংলা সফরে আসেন বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জেপি নাড্ডা (J P Nadda)। মালদহে কৃষকদের সঙ্গে মাঠে বসে খিচুড়ি খাওয়ায় অংশ নেওয়া-সহ একাধিক কর্মসূচি ছিল তাঁর। এরপর নবদ্বীপের উদ্দেশ্যে রওনা হন জেপি নাড্ডা।

সেখানেই একটি মাঠে রথযাত্রার কর্মসূচি উদ্বোধনের আগে জনসভায় বক্তব্য রাখেন তিনি। সেই সময় ওই মঞ্চে উপস্থিত ছিলেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ, সদ্য বিজেপিতে যোগ দেওয়া রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়-সহ বিজেপির আরও অনেকে। বাংলার সংস্কৃতি নিয়ে বক্তব্য রাখতে গিয়ে, একাধিক মনীষীর নাম নিতে শুরু করেন বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জেপি নাড্ডা। স্বামী বিবেকানন্দের পরিবর্তে ‘বিবেকানন্দ ঠাকুর’ বলে বসেন তিনি, ভুল করেই। তাঁর এই মন্তব্য নিয়ে স্বাভাবিকভাবেই বিভিন্ন মহলে চলছে এখন জোরদার চর্চা। রাতেই বক্তব্যের অংশটি টুইট করে রাজ্যের শাসকদল তৃণমূল। বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জেপি নাড্ডা ভুল বলে কার্যত বিবেকানন্দকে অপমান করেছেন বলেই দাবি তৃণমূলের।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, এটাই প্রথমবার নয়, এধরনের ভুল মন্তব্যের ধারার। এর আগেও একাধিকবার বিজেপির বিরুদ্ধে বাংলার মনীষীদের অপমান করার অভিযোগ উঠেছে। এর আগে অমিত শাহের সফরের মাঝে ঈশ্বরচন্দ্র বিদ্যাসাগরের মূর্তি ভাঙচুর নিয়েও বিস্তর চর্চা চলে। আবার অতি সম্প্রতি ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়ালের ‘জয় শ্রীরাম’ ধ্বনি ওঠার ঘটনাতেও উঠেছে ১২৫ তম জন্মজয়ন্তীতে নেতাজি সুভাষচন্দ্র বসুকে অপমান করার অভিযোগ। সেই তালিকায় এবার নবতম সংযোজন হল এই ‘বিবেকানন্দ ঠাকুর’ মন্তব্য।

আরো পড়ুনঃ   মালদহের গাজোল থেকে আজ কী বক্তব্য রাখলেন যোগী আদিত্যনাথ, দেখে নিন একনজরে