‘ভালো বন্ধু’র দল ছেড়ে যাওয়াকে গুরুত্ব দিতে নারাজ শুভেন্দু

বাবুল খুব একটা জনপ্রিয় নেতা ছিলেননা। তাই তাঁর দল ছেড়ে যাওয়ায় খুব একটা ক্ষতি হবে না। আসানসোলের বিজেপি সাংসদের তৃণমূলে যোগদান প্রসঙ্গে এমনটাই জানালেন রাজ্যের বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী। যদিও তিনি স্বীকার করেছেন বাবুল সুপ্রিয় তাঁর খুব ভালো বন্ধু।

শনিবার হটাৎ করেই নাটকীয়ভাবে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় এবং ডেরেক ও ব্রায়েনের হাত ধরে তৃণমূলে যোগদান করেন বাবুল সুপ্রিয়। যাতে কার্যত বেশ খানিকটা অবাক হয়েছে রাজনৈতিক মহল। এই নিয়ে বিস্তর তরজাও চলেছে। কিন্তু এই বিষয়টিকে তেমন আমল দিতেই চাইছেন না নন্দীগ্রামের বিধায়ক শুভেন্দু অধিকারী।

এই প্রসঙ্গে শুভেন্দু অধিকারী বলেন, “দল ছাড়ার আগে বিজেপি-কে জানানো উচিত ছিল বাবলু সুপ্রিয়র। তবে তাঁর দল ছেড়ে যাওয়ায় বিজেপি-র কোনও বড় ক্ষতি হবে না। বাবুল খুব একটা জনপ্রিয় নেতা ছিলেন না, রাজনৈতিক সংগঠকও ছিলেন না। যদিও বাবুল আমার ভালো বন্ধু।”

এদিকে রাজনীতি থেকে সরে দাঁড়ানোর কথা বললেও সাংসদ পদ ধরে রেখেছিলেন বাবুল সুপ্রিয়। এমনকি এখনও ঘাসফুলে যোগদান করলেও আসানসোলের সাংসদ পদ ছাড়েননি তিনি। কিন্তু তাঁকে আর সেখানে জনপ্রতিনিধি করে রাখতে চাইছে না বিজেপি। এমনটাই খবর দলীয় সূত্রে। তাই বাবুলের দলবদলের পরই আসানসোলে বিশেষ বৈঠক করতে চলেছেন শুভেন্দু অধিকারী। বিজেপি সূত্রে জানানো হয়েছে, সোমবার বেলা তিনটে নাগাদ আসানসোল জেলা কার্যালয়ে কার্যকর্তাদের সঙ্গে বৈঠকে বসবেন শুভেন্দু অধিকারী।