‘ইয়াস’ এর তাণ্ডবলীলা চলাকালীনই চন্ডীপুরের ক্ষতিগ্রস্থ এলাকা ঘুরে দেখলেন সোহম

‘ইয়াস’ এর তাণ্ডবলীলা চলাকালীনই চন্ডীপুরের ক্ষতিগ্রস্থ এলাকা ঘুরে দেখলেন সোহম
‘ইয়াস’ এর তাণ্ডবলীলা চলাকালীনই চন্ডীপুরের ক্ষতিগ্রস্থ এলাকা ঘুরে দেখলেন সোহম

বংনিউজ২৪x৭ বিনোদন ডেস্কঃ করোনা পরিস্থিতি মাঝেই রাজ্যে এসে হাজির হয়েছে আরও এক বিপর্যয় শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড় ‘ইয়াস’। পূর্বাভাস অনুযায়ী প্রায় সকাল ৯.১৫ থেকে বালেশ্বরের ধামরা বন্দরের কাছে আছড়ে প়ড়তে শুরু করে শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড় ‘ইয়াস’। তবে বাংলায় ‘ইয়াসের’ ল্যান্ডফল না হলেও বাংলার উপকূলবর্তী এলাকায় সমুদ্রের প্রবল জলোচ্ছ্বাসের কারণে জল ঢুকছে সমুদ্র তীরবর্তী এলাকাগুলিতে, এমনকি ভেঙে গিয়েছে একাধিক নদী বাঁধও। প্লাবিত হয়েছে বহু গ্রাম। আর ‘ইয়াস’ এর তাণ্ডবলীলা চলাকালীনই চন্ডীপুরের ক্ষতিগ্রস্থ এলাকা ঘুরে দেখলেন সোহম। দেখুন ভিডিও..

প্রসঙ্গত ঘূর্ণিঝড়ের মোকাবিলায় আগে থেকেই প্রস্তুতি শুরু করেছিল প্রশাসন। ‘ইয়াস’ এর সবথেকে বেশি প্রভাব পড়তে চলেছে পূর্ব মেদিনীপুরে তা আগেই জানিয়ে দিল আবহাওয়া দপ্তর। আর তাই ‘ইয়াস’ এর মোকাবিলায় নিজের বিধানসভা এলাকা অর্থাৎ পূর্ব মেদিনীপুরের চন্ডীপুর কেন্দ্রে মানুষের সাহায্যে এগিয়ে এসেছিলেন টলিউডের অন্যতম অভিনেতা তথা তৃণমূল বিধায়ক সোহম চক্রবর্তী।

উল্লেখ্য এবারের নির্বাচনে পূর্ব মেদিনীপুরের চন্ডীপুর কেন্দ্র থেকে তৃণমূল প্রার্থী হিসেবে জয়ী হন তিনি। আর তাই এবার বিধায়ক হিসেবে নিজের দায়িত্ব থেকে পিছপা হননি অভিনেতা সোহম। ‘ইয়াস’ এর তাণ্ডবলীলা শুরু হওয়ার আগে থেকে অভিনেতা এলাকা পরিদর্শন থেকে শুরু করে গ্রামবাসীদের সুরক্ষিত স্থানে সরিয়ে নিয়ে যাওয়ার ব্যবস্থা করেন। নিজের বিধানসভা এলাকা অর্থাৎ চন্ডীপুরে ঝড় মোকাবিলায় জোরকদমে অভিযান চালান অভিনেতা সোহম। সেখানে আগে থেকে দুটি কন্ট্রোল রুম খোলা হয়। এছাড়া গ্রামবাসীদের নিরাপদ স্থানে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে।

অন্যদিকে ‘ইয়াস’ এর তাণ্ডবলীলা চলাকালীনই চন্ডীপুরের ক্ষতিগ্রস্থ এলাকা পরিদর্শন করেন সোহম। এবং সেই ছবি তুলে ধরেন সোশ্যাল মিডিয়ায়। হাঁটু জলে দাঁড়িয়ে চণ্ডীপুরের বিভিন্ন এলাকা পরিদর্শন করেন তিনি। ছবি ক্যাপশনে লেখেন, আজ ঝড়ের তান্ডব চলাকালীনই সকাল থেকেই চণ্ডীপুরে প্লাবিত অঞ্চলগুলি পরিদর্শন এবং ক্ষতিগ্রস্ত এলাকাগুলিতে যত দ্রুত সম্ভব জনজীবন স্বাভাবিক করার প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে। তিনি আরও কী লিখলেন দেখে নিন..