ফিরে দেখা, হিন্দি গান বাজিয়ে বিধানসভায় সকলকে বিড়ম্বনায় ফেলেছিলেন সুব্রত মুখোপাধ্যায়!

ফিরে দেখা, হিন্দি গান বাজিয়ে বিধানসভায় সকলকে বিড়ম্বনায় ফেলেছিলেন সুব্রত মুখোপাধ্যায়!
ফিরে দেখা, হিন্দি গান বাজিয়ে বিধানসভায় সকলকে বিড়ম্বনায় ফেলেছিলেন সুব্রত মুখোপাধ্যায়!

কালীপুজোর রাতেই প্রয়াত হলেন রাজ্যের পঞ্চায়েত মন্ত্রী সুব্রত মুখোপাধ্যায়। বৃহস্পতিবার রাত ৯টা ২২ মিনিট নাগাদ কলকাতার এসএসকেএম হাসপাতালে শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি। তাঁর মৃত্যুতে শোকস্তব্ধ রাজনৈতিক মহল৷ তিনি ছিলেন সদাহাস্যজ্বল এক ব্যক্তি। সকলেই তাঁকে বেশ পছন্দ করতেন। কিন্তু মাঝে মধ্যে তিনি এমন কাণ্ড ঘটিয়েছেন, যার ফলে বিড়ম্বনায় পড়েছিলেন অন্যরা।

একবার বিধানসভায় তারস্বরে বলিউডি ‘চোলিকে পিছে ক্যায়া হ্যায়’ গান বাজিয়ে উপস্থিত অন্যান্য বিধায়ক, মন্ত্রী ও অধ্যক্ষকে বিচলিত করেছিলেন সুব্রত মুখোপাধ্যায়। বিধানসভা কক্ষে হঠাৎ বেজে উঠেছিল সেই গান। তা শুনে তৎকালীন মুখ্যমন্ত্রী জ্যোতি বসু নিজের স্বভাব সিদ্ধ ভঙ্গিতেই বসে থাকলেও স্পিকার হাসিম আব্দুল হালিম রীতিমতো বিচলিত হয়ে ওঠেন। তবে কে যে তা বাজাচ্ছিলেন তা ঠাহর করা যাচ্ছিল না।

ফিরে দেখা, হিন্দি গান বাজিয়ে বিধানসভায় সকলকে বিড়ম্বনায় ফেলেছিলেন সুব্রত মুখোপাধ্যায়!
ফিরে দেখা, হিন্দি গান বাজিয়ে বিধানসভায় সকলকে বিড়ম্বনায় ফেলেছিলেন সুব্রত মুখোপাধ্যায়!

অবশেষে স্পিকার ঠিক কী করবেন বুঝতে না পেরে মার্শালকে ডেকে আদেশ দেন কোথায় এই গান বাজছে তা খুঁজে বের করতে। কিন্তু তিনিও বুঝে উঠতে পারছিলেন না। এমন সময় সিপিআইএমের এক বিধায়ক বলে উঠেন, “স্যার, সুব্রত বাবুর চাদরের ভিতর থেকে গান বাজছে।” তখন বিরোধী বেঞ্চের প্রথম সারিতেই বসতেন সুব্রত মুখোপাধ্যায়। মার্শাল সেখানে গিয়ে দেখেন সত্যিই সুব্রতবাবু-ই গান বাজাচ্ছেন। এরপর মার্শাল তাঁকে উদ্দেশ্য করে বলেন, “স্যার, চাদরের ভেতর থেকে ওই যন্ত্রটি বের করে দিন। নাহলে জোর করে বের করে নিতে বাধ্য হব।”

সে কথা শুনেই সুব্রত বাবু চাদর সরাতেই দেখা যায় তার বাঁ হাতের বগলে চেপে ধরে রাখা একটি টেপ রেকর্ডার। মার্শাল টেপ রেকর্ডারটি এনে জমা দেন স্পিকারের কাছে। এরপর বিধান সভা কক্ষে তা বেআইনি বলে ঘোষণা করে টেপ রেকর্ডারটি বাজেয়াপ্ত করেন স্পিকার। বাম বিধায়করা এই সিদ্ধান্তকে সমর্থন করলেও কংগ্রেস বিধায়করা তা মানেননি। তা নিয়ে বিধানসভা কক্ষে শুরু হয় শোরগোল। পরে অবশ্য পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসে।

ফিরে দেখা, হিন্দি গান বাজিয়ে বিধানসভায় সকলকে বিড়ম্বনায় ফেলেছিলেন সুব্রত মুখোপাধ্যায়!
ফিরে দেখা, হিন্দি গান বাজিয়ে বিধানসভায় সকলকে বিড়ম্বনায় ফেলেছিলেন সুব্রত মুখোপাধ্যায়!

বিধানসভায় সুব্রতবাবু যে টেপ রেকর্ডারটি বাজিয়েছিলেন তিনি তা উপহার পেয়েছিলেন এক বিদেশ সফরে। সেটি বাজেয়াপ্ত ঘোষণার পর তিনি স্পিকারকে বারবার অনুরোধ করেন তা ফিরিয়ে দেওয়ার জন্য। কিন্তু স্পিকার রাজি হননি। পরে এই কথাটি মুখ্যমন্ত্রী জ্যোতি বসুর কানে যেতে তিনি স্পিকারকে বলেন, “যা হওয়ায় তা হয়েছে। ওই টেপ রেকর্ডারটির কোনও দোষ নেই। এটি সুব্রত বাবুর উপহার পাওয়া। ওঁকে তা ফিরিয়ে দিন।” এরপর জ্যোতি বসুর সেই নির্দেশ মতো স্পিকার সেটি সুব্রত মুখোপাধ্যায়কে ফিরিয়ে দেন।

তবে প্রশ্ন উঠেছিল, বিধানসভায় এমন বালখিল্য আচরণ কেন করেছিলেন সুব্রতবাবু? আসলে একটি ঘটনার প্রতিবাদ করতেই তিনি এমনটা করেছিলেন। বিধানসভার কাণ্ডটির দু’দিন আগেই সল্টলেক স্টেডিয়ামে তৎকালীন ক্রীড়া ও যুব কল্যাণ মন্ত্রী সুভাষ চক্রবর্তীর উদ্যোগে আয়োজিত হয়েছিল একটি জলসা। কিন্তু সরকারি উদ্যোগে তা আয়োজিত হওয়ায় রাজ্যের সংস্কৃতি জগতের অনেকেই আপত্তি তুলেছিলেন। এরই প্রতিবাদে সুব্রত মুখোপাধ্যায় বিধানসভা কক্ষে এমন অবাক কাণ্ড ঘটিয়েছিলেন।