নিম্নচাপের জের! আর কয়েক ঘণ্টার মধ্যে ভারী বৃষ্টির সতর্কতা রাজ্যের এইসব জেলায়

নিম্নচাপের জের! আর কয়েক ঘণ্টার মধ্যে ভারী বৃষ্টির সতর্কতা রাজ্যের এইসব জেলায়
নিম্নচাপের জের! আর কয়েক ঘণ্টার মধ্যে ভারী বৃষ্টির সতর্কতা রাজ্যের এইসব জেলায় / প্রতীকী ছবি

বংনিউজ ২৪x৭ ডিজিটাল ডেস্কঃ আশ্বিন মাসেও ক্রমাগত একের পর এক নিম্নচাপের প্রভাবে বৃষ্টি হয়েই চলেছে। সঙ্গে জলযন্ত্রণা তো রয়েইছে। বুধবার বিকেল থেকে টানা বৃষ্টিতে কিছুটা ছেদ পড়লেও, রাত থেকে আবার দুর্যোগ শুরু হয়। আলিপুর আবহাওয়া দফতর থেকে জানানো হয়েছে যে, পশ্চিমের জেলাগুলিতে বৃহস্পতিবার বিকেল পর্যন্ত চলতে পারে এই বৃষ্টি। পশ্চিম মেদিনীপুর, পশ্চিম বর্ধমান, বাঁকুড়া, বীরভূম, পুরুলিয়ায় আগামী ২ থেকে তিন ঘণ্টার মধ্যে ফের বৃষ্টি শুরু হবে, এমনটাই জানানো হয়েছে হাওয়া অফিস থেকে।

আলিপুর আবহাওয়া অফিসের পূর্বাভাস অনুযায়ী, বুধবার সন্ধ্যায় নিম্নচাপটি বেশ কিছুটা দুর্বল হয়ে ঝাড়খণ্ডের ধানবাদের কাছে অবস্থান করছে। এই কারণেই রাজ্যের পশ্চিমের জেলাগুলি ফের বৃষ্টিতে ভাসবে। তবে, কলকাতা ও লাগোয়া জেলাগুলিতে এক নাগাড়ে ভারী বৃষ্টির কোনও সম্ভবনা নেই। তবে, বিক্ষিপ্তভাবে হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টি হতে পারে বলেই জানান হয়েছে৷

আবার শনিবার থেকে উত্তরবঙ্গে বৃষ্টির পূর্বাভাস দিয়েছে আলিপুর আবহাওয়া দফতর। উত্তরবঙ্গ-সহ পূর্ব ভারতের রাজ্যগুলিতে বৃষ্টির সতর্কতা জারি করা হয়েছে। ঘূর্ণিঝড় গুলাব শক্তি হারিয়ে সুস্পষ্ট এবং গভীর নিম্নচাপে পরিণত হতেই এই বিপত্তি। জানা গিয়েছে যে, রাজ্যের মধ্যে পশ্চিম বর্ধমান, বাঁকুড়া এবং পুরুলিয়া জেলায় ৩০ থেকে ৪০ কিলোমিটার বেগে হাওয়া বইতে পারে। পাশাপাশি কলকাতা-সহ পার্শ্ববর্তী এলাকায় হালকা থেকে মাঝারি ও বিক্ষিপ্ত বৃষ্টিপাত হবে।

এদিকে, আবহাওয়া অফিস সূত্রে জানা গিয়েছে, আজ আকাশ মেঘলাই থাকবে। কলকাতা ও পার্শ্ববর্তী এলাকায় দিনের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা থাকবে ২৭.১ ডিগ্রি সেলসিয়াস, যা স্বাভাবিকের থেকে ৬ ডিগ্রি কম। দিনের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা থাকবে ২৫.৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস। বাতাসে আপেক্ষিক আর্দ্রতার পরিমাণ সর্বাধিক ৯৮ শতাংশ, ন্যূনতম ৯১ শতাংশ৷ গত ২৪ ঘণ্টায় বৃষ্টি হয়েছে ৩৬.৭ মিলিমিটার।