সাহসী পদক্ষেপ! হাড় কাঁপানো শীতে লন্ডনের রাস্তায় প্রায় নগ্ন হয়ে সাইকেল সফরে তরুণী! কেন জানলে বাহবা দেবেন

সাহসী পদক্ষেপ! হাড় কাঁপানো শীতে লন্ডনের রাস্তায় প্রায় নগ্ন হয়ে সাইকেল সফরে তরুণী! কেন জানলে বাহবা দেবেন
সাহসী পদক্ষেপ! হাড় কাঁপানো শীতে লন্ডনের রাস্তায় প্রায় নগ্ন হয়ে সাইকেল সফরে তরুণী! কেন জানলে বাহবা দেবেন

বংনিউজ২৪x৭ ডেস্কঃ এক কথায় সাহসী পদক্ষেপ! আর এই সাহসী পদক্ষেপ যিনি নিয়েছেন তাঁর নাম কেরি বার্নেস। কী পদক্ষেপ? তাহলে শুনুন, বছর ২৫ এর কেরি লন্ডনের রাস্তায় প্রায় ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রার হাড় কাঁপানো ঠাণ্ডায়, একপ্রকার নগ্ন হয়ে সাইকেল চালিয়ে ঘুরে বেড়ালেন।

দূর থেকে দেখে, নগ্নই মনে হবে। কিন্তু কাছে গেলে বোঝা যাবে, শুধুমাত্র যৌনাঙ্গ আবৃত রেখেছেন তিনি। তাতেও কোনও অতিরিক্ত আবরণ নেই। আর বাকি শরীর অনাবৃত। কেরিকে এইভাবে দেখে কেউ অবাক দৃষ্টিতে তাকাচ্ছেন, তো কেউ আবার বিদ্রূপের দৃষ্টি নিক্ষেপ করছেন কেরির দিকে। কেরি কিন্তু কোনও কিছুরই পরোয়া করছেন না। হাসি মুখে, সাইকেল চালিয়ে ঘুরে বেড়াচ্ছেন লন্ডনের রাস্তায় রাস্তায়। আবার কখনও কখনও ক্যামেরার সামনে পোজও দিচ্ছেন।

এবার আসা যাক আসল প্রসঙ্গে। কী কারণে এই ব্রিটিশ তরুণী এমন পদক্ষেপ নিলেন? কেরি তাঁর এই সাইকেল সফর শুরু করার আগে এক ভিডিও বার্তায় তাঁর এই সফরের কারণ সম্পর্কে সবিস্তারে উল্লেখ করেছেন।

করোনা কালে, দীর্ঘকালীন সময় ধরে একাকীত্ব, সামাজিক মেলামেশা থেকে দূরে থাকা, প্রিয়জনকে হারানো প্রভৃতি নানা কারণ মানুষকে মানসিক অবসাদের দিকে ঠেলে দিয়েছে। আর এই মানসিক অবসাদ ভয়ানক আকার ধারণ করেছে। বহু মানুষ এই মানসিক অবসাদের শিকার হচ্ছেন। কেরি এই বিষয় সম্পর্কে অবগত হন, যখন তাঁরই এক আত্মীয় আত্মহত্যার চেষ্টা করেন। কেরির কথায়, ইচ্ছে থাকলেও, সেই আত্মীয়কে সাহায্য করতে পারেননি। তবে তিনি বুঝতে পেরেছিলেন যে, মানসিক অবসাদ কতোটা ভয়ানক পরিস্থিতি তৈরি করতে পারে!

তাই এই মানসিক অবসাদের শিকার হওয়া মানুষদের পাশে দাঁড়াতে, দুই সপ্তাহের এই সফর শুরু করেছেন কেরি বার্নেস ২৯ নভেম্বর থেকে। ‘কেরি সাইকেলস ন্যুড’ হ্যাশট্যাগ দিয়ে সফরের নানা ছবি শেয়ার করেছেন অনেকেই। এই সফরের মাধ্যমে ৭০০০ ব্রিটিশ পাউন্ড জোগাড় করার লক্ষ্যমাত্রা ছিল কেরির। ভারতীয় মুদ্রায় যা দাঁড়ায় প্রায় ৭ লক্ষ টাকা। কেরি ইতিমধ্যেই সেই লক্ষ্যমাত্রা পূরণ করে ফেলেছেন। এখনও অবধি তিনি ৯০০০ ব্রিটিশ পাউন্ড জোগাড় করে ফেলেছেন, ভারতীয় মুদ্রায় প্রায় ৯ লক্ষ টাকা।

অর্জিত এই টাকা কেরি সবটাই দান করবেন ‘মাইন্ড’ নামের এক স্বেচ্ছাসেবী সংস্থাতে। যার কর্মীরা মানসিক অবসাদের শিকার ব্যক্তিদের নানাভাবে সাহায্য করেন। কেরির এই অভিনব উদ্যোগের সঙ্গে পরিচিত হওয়ার পর, অনেকেই তাঁকে কুর্নিশ জানিয়েছেন, সাধুবাদ দিয়েছেন।

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন.