অবাক কাণ্ড! গর্ভবতী অবস্থাতেই নতুন গর্ভধারণ! যমজ সন্তানের ‘মা’ও হলেন এই তরুণী

অবাক কাণ্ড! গর্ভবতী অবস্থাতেই নতুন গর্ভধারণ! যমজ সন্তানের 'মা'ও হলেন এই তরুণী / Image Source- Instagrammed By @roberts.supertwins
অবাক কাণ্ড! গর্ভবতী অবস্থাতেই নতুন গর্ভধারণ! যমজ সন্তানের 'মা'ও হলেন এই তরুণী / Image Source- Instagrammed By @roberts.supertwins

একই গর্ভে দুই বা ততোধিক সন্তানধারণের খবর তো আকছারই শোনা যায়৷ কিন্তু গর্ভবতী থাকা অবস্থায় ফের নতুন করে গর্ভধারণের কথা কখনও শুনেছেন কি? হ্যাঁ, ঠিক এমনটাই ঘটেছে রেবেকা রবার্টসের ক্ষেত্রে। তাঁর গর্ভে এক সন্তান থাকাকালীন অবস্থাতেই ফের গর্ভধারণ করে ফেলেছিলেন তিনি! মাঝে শুধুমাত্র সপ্তাহ তিনেকের তফাৎ! তা দেখে বিষ্ময়ের শেষ নেই তাঁর স্বামীরও।

কিন্তু কীভাবে ঘটেছে এমন অদ্ভুত বিষয়? এই ধরণের ঘটনা আসলে খুবই বিরল। একে বলা হয় ‘সুপারফিটেশন’। সারা বিশ্বে ০.৩ শতাংশ মহিলা এই পরিস্থিতির শিকার। এর ফলে, অন্তঃসত্ত্বা অবস্থাতেও নারীর শরীরে ফের একটি ডিম্বাণু মুক্ত হয়। যা নিষিক্ত হলেই তিনি ফের গর্ভবতী হয়ে পড়েন। তবে অধিকাংশ ক্ষেত্রেই দ্বিতীয় সন্তানটি মারা যায়। তবে রেবেকার ক্ষেত্রে ব্যাপারটা একটু হলেও আলাদা! গত সেপ্টেম্বরেই যমজ সন্তানের জন্ম দিয়েছেন তিনি৷ পুত্র নোয়া ও কন্যা রোজালি। বর্তমানে তারা দুজনেই বেশ সুস্থ-সবল।

এই প্রসঙ্গে রেবেকা স্বয়ং জানিয়েছিলেন নিজের অভিজ্ঞতার কথা, “আমি প্রথমে যে দু’টি স্ক্যান করিয়েছিলাম তাতে নোয়াকেই দেখা গিয়েছিল। এরপর ফের স্ক্যান করানোর সময় সোনোগ্রাফার অবাক হয়ে যান। যেন এমন কিছু ঘটেছে যা তিনি বিশ্বাসই করতে পারছেন না। এরপর আমার দিকে তাকিয়ে তিনি বললেন, আমি যমজ সন্তানের মা হতে চলেছি। শুনেই আমার হার্টবিট বেড়ে যায়।”

রেবেকার দুই সন্তানের মধ্যে তিন সপ্তাহের ফারাক থাকলেও, দুই ভাইবোনই যমজ। প্রথমে পুত্র নোয়া জন্মের পর সে সুস্থ থাকলেও, কন্যা রোজালি আকারে বেশ খানিকটা ছোট ছিল। তাকে অন্য একটি হাসপাতালে ৯৫ দিন রেখে চিকিৎসা করা হয়। এখন সে সম্পূর্ণই সুস্থ। আর সব বিপদ কাটিয়ে দুই সন্তানকে কোলে পেয়ে বেজায় খুশি রেবেকাও।

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন.