বৃহস্পতিবার, ১৯ মে, ২০২২

হেডফোন কানে, রেললাইনে বসে মগ্ন মোবাইলের স্ক্রিনে! মর্মান্তিক পরিণতি ৪ যুবকের

০৩:২৭ পিএম, আগস্ট ২৩, ২০২১

হেডফোন কানে, রেললাইনে বসে মগ্ন মোবাইলের স্ক্রিনে! মর্মান্তিক পরিণতি ৪ যুবকের

ট্রেনে কাটা পড়ে একসঙ্গে মৃত্যু হল চার কিশোরের। ছিন্নভিন্ন হয়ে গেল দেহ। মর্মান্তিক ঘটনাটি ঘটেছে উত্তর দিনাজপুর জেলার চোপড়ার ধুমডাঙ্গী স্টেশন এলাকায়। তখন তীব্র গতিতে লাইন দিয়ে ছুটে আসছে ট্রেন। বাজানো হয়েছিল হুইসেলও। কিন্তু তা কানে পৌঁছয়নি। কারণ ওরা তখন ডুবে ছিল মোবাইল ফোনে। আর কানে হেডফোনের সঙ্গে চোখ ছিল মোবাইল স্ক্রিনে। ফলে কোনও ভ্রুক্ষেপ ছিল না। তারই মাশুল দিতে হল নিজেদের জীবন দিয়ে।

স্থানীয় সূত্রে খবর, সন্ধ্যাবেলায় ওই চার কিশোর রেল লাইনের উপর বসে ছিল কানে হেডফোন দিয়ে। তখনই ডাউন লাইনে ছুটে আসছিল আগরতলা–দেওঘর এক্সপ্রেস। তা দেখতে পেয়ে অনেকে চিৎকার করছিলেন। ট্রেনও হুইসেল বাজিয়ে এগিয়ে আসছিল। কিন্তু তা ওই চার কিশোরের কানে কোনও কিছুই পৌঁছায় না।মুহূর্তের মধ্যে চলন্ত ট্রেনে কাটা পড়ে ছিন্ন বিচ্ছিন হয়ে যায় চারটি দেহ।

ছুটে আসেন স্থানীয়রা। কিন্তু তখন আর কিছু করার নেই। খবর পেয়ে আসে রেল পুলিশও। মৃতরা প্রত্যেকেই চোপড়ার কোনাগছ গ্রামের বাসিন্দা। তবে তাদের পুরো পরিচয় এখনও অজানা।এদিকে সরকারিভাবে ঠিক কতজনের মৃত্যু হয়েছে তা নিয়ে দ্বন্দ্বে রয়েছে রেল পুলিশ। এই পুরো ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে রেল পুলিশ। এদিকে গ্রামবাসীদের অভিযোগ রেল পুলিশকে মৃত্যুর খবর দেওয়া সত্ত্বেও তারা তৎক্ষণাৎ ঘটনাস্থলে আসেননি।